পানির ব্যবহার

পানি ব্যবহারের ভূমিকা

আমরা জানি যে পানি জীবনের জন্য গুরুত্বপূর্ণ। আমরা এও জানি যে পৃথিবী আরো গরম, শুকনো, এবং জন-অধ্যুষিত হয়ে যাচ্ছে। জনসংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়া এবং ক্রেতাদের মধ্যে আরো পোশাক এবং জুতোর চাহিদা বৃদ্ধি পাওয়ার সাথে সাথে, তাজা পানিরও চাহিদা আরও বাড়ছে। পৃথিবীতে পানির পরিমাণ নির্দিষ্ট, কিন্তু আমরা আমাদের জনসংখ্যা এবং শিল্পের প্রয়োজনে আরো এবং আরও পানি দাবি করে চলেছি। পৃথিবীতে পানির চাহিদা বাড়ার সাথে সাথে যদি আপনার কারখানাতে তাজা পানি ব্যবহার হয়, তাহলে আপনার কারখানা শ্রমিক, কম্যুনিটি, এবং পরিবেশের প্রাপ্য পরিষ্কার, সুপেয় পানীর পরিমাণ কমিয়ে দিচ্ছে। এটি কেবলমাত্র আপনার ব্যবসার জন্য ঝুঁকির কারণ নয়, আপনার কম্যুনিটি এবং গ্রহের জন্যও বৃহত্তর অর্থে ঝুঁকির কারণ ঘটায়।

আপনার কারখানার সাইটের পরিচালনা নির্বাহ করার ক্ষেত্রে তাজা পানির ব্যবহারে উন্নতি ঘটানোর পদক্ষেপ নেয়ার জন্য, এটি বোঝা গুরুত্বপূর্ণ যেতটা পানি আপনি নিচ্ছেন।

সংস্থাগুলোর ব্যবহার করা পানি বিভিন্ন উৎস থেকে আসতে পারে, যার অন্তর্ভুক্ত হলো নিম্নলিখিত (পরিভাষিত রেফারেন্স সিডিপি ওয়াটার রিপোর্টিং গাইডেন্স):

 

  • উপরিভাগের তাজা পানিঃ  উপরিতলের পানি হলো প্রাকৃতিক উপায়ে প্রাপ্ত পানি যা বরফের চাদর, আইস ক্যাপ, হিমবাহ, আইসবার্গ, বগ, পুকুর, হ্রদ, নদী এবং ঝরণা রূপে পৃথিবীর উপরিভাগে থাকে। ভূগর্ভ্যস্থ তাজা পানিকে বলা হয় গ্রাউন্ডওয়াটার এবং সমুদ্র তাজাপানি নয়। তাজা পানির উৎসগুলোকে সাধারণট বৈশিষ্ট্যায়িত করা হয় নিম্ন মাত্রার মিশ্র লবণ (১০০০ এমজি/এল-এর কম) এবং সমস্ত অন্যান্য মিশ্র কঠিন পদার্থের ভিত্তিতে।
  • বৃষ্টির পানিঃ যদি একটি সংস্থা বৃষ্টির পানির ব্যবস্থাপনা করে, তার চাষ বা ব্যবহার করার জন্য, অথবা বন্যা রোধ করার জন্য উদাহরণ স্বরূপ, তাদের এটি হাইড্রোলজিক্যাল সিস্টেম থেকে উত্তোলন হিসেবে এটিকে হিসেব করা এবং প্রকাশ করা উচিত। এটি সংস্থাগুলোকে তাদের পানির উপর নির্ভরতা এবং ঝুঁকি সম্পর্কে আরো ভালো করে বুঝতে সাহায্য করে।
  • ভূগর্ভ্যস্থ পানি:  মাটির উপরিভাগের নিচের মাটির পানি, সাধারণত এরকম অবস্থায় যেখানে পানির উপর চাপ বায়ুমণ্ডলের চাপের চাইতে অধিক, এবং মাটির মধ্যেকার শূন্যস্থান পানি দিয়ে পূর্ণ থাকে। পুনর্নবীকরণযোগ্য নয় এমন ভূগর্ভ্যস্থ পানি সাধারণত খুব গভীরে থাকে এবং পুনরায় ভরা যায় না বা গেলেও দীর্ঘ সময় ধরে করতে হয়। এগুলোকে কখনও কখনও “জীবাশ্ম” ভূগর্ভ্যস্থ পানির উৎসও বলা হয়।
  • উৎপাদিত/প্রক্রিয়াজাত পানিঃ নিষ্কাশন বা প্রক্রিয়াকরণের সময় যে পানি, প্রত্যক্ষ সম্পর্কে আসে অথবা কোনো কাঁচা মালের উৎপাদন বা ব্যবহার থেকে তৈরি হয় (যেমন, অপরিশোধিত তেল (ক্রুড অয়েল) অথবা আখ পেষাইয়ের ফলে উপজাত), মাঝামাঝি কোনো পণ্য, চূড়ান্ত পণ্য, উপজাত পণ্য, অথবা বর্জ্য পণ্য। খেয়াল করবেন যে এতেও পুনর্ব্যবহৃত/ রিসাইক্‌ল করা পানি ব্যবহার করা হয়ঃ

জি-আর-আই অনুযায়ী –  জি৪ অনুযায়ী সূচক ইএন১০-এর ব্যাখ্যা, রিসাইক্‌ল করা অথবা পুনর্ব্যবহৃত পানির পরিভাষা দেয়া হয় “চূড়ান্ত পরিশোধন এবং/অথবা পরিবেশে নিষ্ক্রমণের আগে আরেকটি চক্রের মধ্যে দিয়ে ব্যবহৃত পানির / বর্জ্য পানির  প্রক্রিয়াকরণের একটি কাজ” হিসেবে। এটি তিন ধরনের পানি রিসাইক্লিং/পুনর্ব্যবহার সংক্রান্ত চর্চাকে সুনির্দিষ্ট করেঃ

  • একই প্রক্রিয়ায় রিসাইক্‌ল করা বর্জ্যপানি অথবা প্রক্রিয়াচক্রে রিসাইক্‌ল করা পানির বেশি ব্যবহার;
  • অন্য কোনো প্রক্রিয়ায়, কিন্তু একই কারখানার ভেতর রিসাইক্লিং/পুনর্ব্যবহার করা বর্জ্যপানি; এবং
  • রিপোর্টিং সংগঠনের অন্য কোনো কারখানায় পুনর্ব্যবহৃত বর্জ্যপানি। ইন্ডিকেটর ইএন১০-এর সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণভাবে, এর অন্তর্ভুক্ত হতে পারে পানি যা পুনর্ব্যবহারের আগে শোধিত হয়েছিল এবং সেই পানিও যা পুনর্ব্যবহারের আগে শোধিত হয়নি। সংগৃহীত বৃষ্টির পানি এবং ঘরোয়া প্রক্রিয়া থেকে উৎপাদিত বর্জ্যপানি যেমন বাসন ধোয়া, কাপড় ধোয়া, এবং স্নান ইত্যাদিও (গ্রে ওয়াটার) এর অন্তর্ভুক্ত হতে পারে।
  • নগরপালিকার পানিঃ কোনো নগরপালিকা বা অন্যান্য গণ-সরবরাহকারী দ্বারা প্রদত্ত পানি।
  • অন্য কোনো সংগঠনের বর্জ্যপানিঃ সেরেস অ্যাকোয়া গজের সংজ্ঞা অনুযায়ী, বর্জ্যপানি হলো “যে কারণে এর সৃষ্টি হয়েছিল অথবা যে কারণে এটিকে ব্যবহার করা হয়েছিল সেই উদ্দেশ্য পূরণের ক্ষেত্রে যে পানির এই মুহূর্তে আর কোনো মূল্য নেই তার গুণগত মান, পরিমাণ অথবা প্রস্তুতির সময়ের কারণে।” শীতলীকরণের পানিকে বর্জ্যপানি হিসেবে বিবেচনা করা হয় না।
  • লোনা উপরিভাগের পানি/ সমুদ্রের পানিঃ  লোনা পানি হল সেই পানি যেটিতে লবণের মাত্রা তূলনামূলকভাবে উচ্চ (১০,০০০ এমজি/লিটার-এর বেশি)। সমুদ্রের পানিতে সাধারণত লবণের মাত্রা ৩৫,০০০ এমজি/লিটার-এর বেশি থাকে।

খেয়াল করুনঃ যে রূপে আপনাকে দেয়া হয়েছে সেইভাবে পানি আপনি ব্যবহার করতে পারেন, অথবা আপনাকে পানি শোধন করতে হতে পারে।

প্রযোজ্যতা

এই বিভাগের শুরুতে আপনাকে আপনার পানির ঝুঁকি গণনা করতে বলা হবে ডাব্ল্যু আর আই অ্যাকোয়েডাক্ট টুল অথবা ডাব্ল্যু ডাব্ল্যু এফ ওয়াটার রিস্ক ফিল্টার ব্যবহারের মাধ্যমে। অধিক পানির ব্যবহার হয় এবং পানির মধ্যম মাত্রার/অধিক মাত্রার ঝুঁকিসম্পন্ন অঞ্চলে অবস্থিত কারখানাগুলোকে পানির যথাযথ ব্যবস্থাপনা সুনিশ্চিত করার জন্য পানি বিভাগটি সম্পূর্ণভাবে পূরণ করতে বলা হবে। নিম্ন মাত্রার পানির ব্যবহার রয়েছে যেসব কারখানাগুলোতে এবং যেগুলো নিম্ন মাত্রার পানির ঝুঁকিসম্পন্ন অঞ্চলে অবস্থিত সেগুলোকে কেবলমাত্র স্তর ১-এর প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে।

যদি আপনি ডাব্ল্যুআরআই অ্যাকোয়েডাক্ট টুল ব্যবহার করেন তাহলে হোম পেজে যান এবং বিশ্বজনীন পানির ঝুঁকির মানচিত্র বেছে নিন এবং ঠিকানা প্রবেশ করান (এন্টার অ্যাড্রেস) বেছে নিন স্ক্রিনের নিচে আপনার কারখানার ঠিকানা ব্যবহার করে সার্চ করার জন্য। ওজন করার জন্য কারখানার ডিফল্ট পরিকল্পনা থাকা উচিত। “নিম্ন মাত্রার ঝুঁকি”, “নিম্ন থেকে মধ্যম মাত্রার ঝুঁকি” এবং “মধ্যম থেকে উচ্চ মাত্রার ঝুঁকি”-কে এফইএম-এ “নিম্ন মাত্রার ঝুঁকি” বলে সংজ্ঞায়িত করা হয়েছে। “উচ্চ মাত্রা” এবং “প্রচণ্ড উচ্চ মাত্রা”কে এফইএম-এ “উচ্চ মাত্রা” হিসেবে অভিহিত করা হয়।

হিগ্‌ এফইএম-এ পানির ব্যবহার অনুসরণ (ট্র্যাকিং) এবং রিপোর্ট করা (রিপোর্টিং)

দীর্ঘ সময় ধরে পানি ব্যবহার সংক্রান্ত উপাত্তকে সঠিকভাবে অনুসরণ করা এবং রিপোর্ট করা হলে তা কারখানার এবং স্টেকহোল্ডারদের উন্নতির সুযোগের ক্ষেত্রে বিশদ অন্তর্দৃষ্টি প্রদান করে। যদি উপাত্ত সঠিক না হয়, তবে তার ফলে একটি কারখানার পানির ব্যবহারের ফুটপ্রিন্ট বুঝতে পারা এবং পরিবেশগত প্রভাব হ্রাস করার জন্য সুনির্দিষ্ট পদক্ষেপগুলিকে চিহ্নিত করা ও কার্যকারীতাকে চালনা করার সক্ষমতা সীমিত হয়ে যায়। 

পানির অনুসরণ এবং রিপোর্টিঙের কার্যক্রম স্থির করার সময়, নিম্নলিখিত নীতিগুলিকে প্রয়োগ করা উচিতঃ

  • সম্পূর্ণতা – অনুসরণ এবং রিপোর্টিং কার্যক্রমে সমস্ত প্রাসঙ্গিক উৎসগুলি অন্তর্ভুক্ত হওয়া উচিত (এফইএম-এ যেমন তালিকাভুক্ত রয়েছে)। উপাত্ত থেকে উৎসগুলোকে বাদ দেওয়া উচিত নয় এবং অনুসরণ ও রিপোর্টিং জড়ত্বের উপর নির্ভরশীল হওয়া উচিত (যেমন, স্বল্প পরিমাণ ব্যতিক্রম)।
  • খুঁতশূন্যতা – পানির অনুসরণ কার্যক্রমে উপাত্ত প্রবেশের বিষয়টি নিখুঁত হওয়া এবং বিশ্বাসযোগ্য সূত্র থেকে আসা নিশ্চিত করুন (যেমন, নির্ণীত ক্রমাঙ্ক পরিমাপক, বৈজ্ঞানিক পরিমাপের প্রতিষ্ঠিত নীতিসমূহ অথবা যন্ত্রবিদ্যার হিসেব, ইত্যাদি।) 
  • সামঞ্জস্য – পানির উপাত্ত অনুসরণ করার জন্য সামঞ্জস্যপূর্ণ প্রণালী-বিদ্যার ব্যবহার যা দীর্ঘ সময় ধরে ব্যবহৃত পানির পরিমাণের মধ্যে তুলনা অনুমোদন করে। অনুসরণ প্রণালী, পানির উৎস, অথবা পানির ব্যবহার সংক্রান্ত উপাত্তকে প্রভাবিত করে এমন অন্যান্য ক্রিয়াকলাপের মধ্যে কোনো রকম পরিবর্তন হলে, তা নথিবদ্ধ হওয়া উচিত।    
  • স্বচ্ছতা – উপাত্তের সমস্ত উৎসগুলো (যেমন, পানির বিল, মিটার রিডিং, ইত্যাদি), ব্যবহৃত অনুমান (যেমন, আনুমানিক হিসেবের প্রযুক্তি), এবং গণনার প্রণালী উপাত্তের বর্ণনামূলক তালিকায় প্রকাশ করা উচিত এবং নথিবদ্ধ রেকর্ড এবং পরিপোষক প্রমাণের মাধ্যমে তাৎক্ষণিকভাবে যাচাইযোগ্য হওয়া উচিত। 
  • উপাত্তের গুণগত মানের ব্যবস্থাপনা – গুণগত মান আশ্বাসনের ক্রিয়াকলাপ (অভ্যন্তরীণ বা বাহ্যিক উপাত্তের গুণগত মান মিলিয়ে দেখা) পানির উপাত্তের জন্য এবং উপাত্ত সংগ্রহ ও অনুসরণ করার প্রক্রিয়ার জন্যও পরিভাষিত এবং সম্পাদিত হওয়া উচিত যাতে জ্ঞাপিত উপাত্ত খুঁতবিহীন হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করা যায়।  

উপরিউক্ত নীতিগুলি গ্রিনহাউস গ্যাস প্রোটোকল – অধ্যায় ১ঃ জিএইচজি অ্যাকাউন্টিং এবং রিপোর্টিং প্রিন্সিপল্‌স থেকে অভিযোজিত।

 

পানির ব্যবহার – স্তর ১

Questions

উৎস 

  • আপনার কারখানা কি এই উৎস থেকে তার পানির ব্যবহারের উপর নজর রাখে?
  • রিপোর্টিং বছরে এই উৎস থেকে কতটা পরিমাণ পানির ব্যবহার হয়েছিল?
  • পরিমাপের ইউনিট 
  • এই উৎস থেকে নির্গমন অনুসরণের জন্য কোন পদ্ধতি অনুসরণ করা হয়েছিল?
  • পরিমাপের হার কিরকম ছিল? 

আপলোডের জন্য সুপারিশ: ঐচ্ছিকঃ প্রত্যেক ধরনের পানির উৎস থেকে মোট পানি ব্যবহারের একটি বার্ষিক সারাংশ। ইউটিলিটি বিল আপলোড করার দরকার নেই, কিন্তু যাচাই প্রক্রিয়া চলাকালীন এগুলো উপলব্ধ থাকা দরকার।

কোনো উৎস থেকে পানি ব্যবহারের পরিমাণ, তা অনুসরণ করতে ব্যবহৃত পদ্ধতি, এবং পরিমাপের হার যদি আপনি রিপোর্ট করতে অক্ষম হন; এই উৎস থেকে পানির ব্যবহার কি আপনার কারখানা অনুসরণ করে? – এই প্রশ্নটির জন্য আপনার উত্তর হিসেবে দয়া করে বেছে নিন না অথবা জানা নেই

দয়া করে খেয়াল করুন যে আপনি যদি ব্যবহৃত পানির উৎসগুলোকে চিহ্নিত না করতে পারেন, এই প্রশ্নের জন্য আপনার উত্তর হিসেবে দয়া করে বেছে নিন “পানি – সাধারণ অথবা অজানা উৎস”

আপনি পুরো পয়েন্ট পাবেন যদি আপনি পানির সেই সমস্ত পরিমাণ সম্পূর্ণভাবে অনুসরণ করতে পারেন যা আপনার কারখানা সমস্ত উৎস থেকে তুলে নেয়।

আপনি আংশিক পয়েন্ট পাবেন যদি আপনি আপনার অন্তত একটি উৎসকে সম্পূর্ণভাবে অনুসরণ করছেন, কিন্তু এখনও আপনার সবকটি উৎসকে অনুসরণ করছেন না।

হিগ এফইএম স্বয়ংক্রিয়ভাবে পানি ব্যবহারের উপাত্তকে সাধারণ ইউনিটে (লিটার) এবং সমগ্র ব্যবহারের %-এ রূপান্তর করে।

এই তথ্য প্রয়োগযোগ্যতা নির্ধারণ করার ক্ষেত্রে গড়ে প্রাত্যহিক পানির ব্যবহার স্বয়ংক্রিয়ভাবে গণনার জন্য ব্যবহৃত হবে।

  • যদি আপনার কারখানা 35 m3-এর বেশি প্রতিদিন ব্যবহার করে থাকে, তাহলে আপনি একজন উচ্চমাত্রার পানি ব্যবহারকারী
  • যদি আপনার কারখানার সাইট 35 m3-এর কম বা সমপরিমাণ প্রতিদিন ব্যবহার করে, আপনি তাহলে একজন হাল্কা মাত্রার পানি ব্যবহারকারী

এই প্রশ্নের উদ্দেশ্য কি?

উদ্দেশ্য হলো আপনাকে দিয়ে পরিমাণগত উপাত্ত প্রবেশ করানো যা আপনার কারখানা কতটা পানি ব্যবহার করছে তা প্রদর্শন করে। এই প্রশ্নটি আপনাকে আপনার কারখানার পানির উৎসের তালিকা তৈরি করতে সহায়তা করে, যা কোন পানি ব্যবহৃত হচ্ছে, আপনার কারখানার কোথায় তা ব্যবহৃত হচ্ছে, এবং কতটা ব্যবহৃত হচ্ছে সেই বিষয়গুলোতে স্পষ্ট বোঝাপড়া প্রদান করে।

পানি ব্যবস্থাপনার ভিত্তি হলো তাজাপানির সমস্ত উৎস থেকে তাজাপানি ব্যবহারের সমস্ত পরিমাপ নেয়া। তাজাপানির সমস্ত উৎসগুলোর পরিমাপ নিশ্চিত করা পানির ভারসাম্য রক্ষা করা, তাজাপানি-ভিত্তিক মূল কর্মকুশলতার সূচক (কী পারফরম্যান্স ইন্ডিকেটর, কেপিআই) স্থির করা, পানি বেরিয়ে যাওয়া চিহ্নিত করা, এবং তাজাপানির ফুটপ্রিন্ট প্রতিষ্ঠা ও পরিমাপ করার সক্ষমতায় সহায়তা করে।

তাজাপানির সবচেয়ে প্রচলিত ব্যবহার হলো নগরপালিকা অথবা শহরের পানি যা পাত্রে রাখা যায় (পান করার যোগ্য)। অন্যান্য উৎসগুলো হতে পারে ভূ-গর্ভস্থ কুয়ো, উপরিভাগের পানি (হ্রদ, নদী, এবং ছোট নদী), বৃষ্টির পানি, রিসাইক্‌ল করা প্রসেস পানি, এবং এমনকি কোনো প্রবাহ থেকে সংগৃহীত জমা পানি যা বহিরাগত উৎস থেকে ব্যবসাকে সরবরাহ করা হয়েছে।

প্রযুক্তিগত নির্দেশনাঃ

কারখানার ভৌগোলিক সীমানা এবং আপনার ব্যবসায়িক নিয়ন্ত্রণের অধীন পরিচালনার মধ্যে ব্যবহৃত সমস্ত পানির উৎসকে দয়া করে অন্তর্ভুক্ত করুন (মালিকানাধীন, পরিচালিত অথবা প্রত্যক্ষভাবে ভাড়া দেয়া)। অন্যের মাধ্যমে করানো যেকোনো মেরামতি অথবা সেবা-প্রাপ্ত এলাকা যেমন ঠিকাদারী চুক্তিতে চালানো ক্যান্টিন অথবা ভাড়ার দোকানকে দয়া করে এর বাইরে রাখুন।

পানির ব্যবহারকে অনুসরণ করা পানির ব্যবস্থাপনায় প্রথম ধাপ হিসেবে বিবেচিত। এভাবে শুরু করার জন্য সুপারিশ করা হয়ঃ

  • পানির উৎস, এবং পানি ব্যবহার করে যেসব ক্ষেত্র/প্রক্রিয়া সেগুলিকে চিহ্নিত করার জন্য ব্যবসা এবং প্রয়োগমূলক প্রক্রিয়ার বিশদ বর্ণনা।
  • পানি ব্যবহারের উপাত্ত সংগ্রহ এবং অনুসরণ করার জন্য প্রক্রিয়াগুলিকে প্রতিষ্ঠা করাঃ
    • ক্রয় করা পানির পরিমাণ নির্ধারণের জন্য ইউটিলিটি বিলের ব্যবহার
    • অন্যান্য প্রযোজ্য উৎস, যেমন বৃষ্টির পানি, রিসাইক্‌ল করা পানি, ইত্যাদি থেকে পানির ব্যবহার অনুসরণ করার পদ্ধতি নির্ধারণ করা।
    • সাইটে ব্যবহৃত পানির পরিমাণ অনুসরণ করার জন্য সাব-মিটার বসানো।
    • পানির ব্যবহার নির্ধারণ করার জন্য যদি অনুমান-প্রযুক্তি ব্যবহার করা হয়, গণনার প্রণালী-বিদ্যা যাচাইযোগ্য উপাত্ত দ্বারা স্পষ্টভাবে পরিভাষিত এবং অনুমোদিত হতে হবে।
    • জায়গাটি কিভাবে পানি পেয়ে থাকে তার তালিকা নেয়া এবং পানি কোথা থেকে আসে এবং কে বা কী সেই পানি সরবরাহ করে সে বিষয়ে তথ্য সংগ্রহ করা।
  • অনুসরণ সংক্রান্ত উপাত্ত (যেমন, প্রাত্যহিক, সাপ্তাহিক, মাসিক ব্যবহারের রেকর্ড) এমন একটি বিন্যাসে রেকর্ড করা যা পর্যালোচনা করা সহজ হয় [যেমন, স্প্রেডশীট (যেমন, মাইক্রোসফট্‌ এক্সেল) অথবা অনুরূপ উপাত্ত বিশ্লেষক কার্যক্রম যা মানুষের পঠনযোগ্য বিন্যাসে উপাত্তকে রপ্তানি করা অনুমোদন করে (যেমন, এক্সেল, সিএসভি)] এবং প্রাসঙ্গিক পরিপোষক প্রমাণ যাচাই চলাকালীন পর্যালোচনার জন্য রক্ষণাবেক্ষণ করা।

হিগ্‌ এফইএম-এ পানির ব্যবহার সংক্রান্ত উপাত্ত রিপোর্ট করাঃ

এফইএম-এ পানির ব্যবহার সংক্রান্ত উপাত্ত রিপোর্ট করার আগে, উপাত্তের গুণগত মান খুঁটিয়ে দেখার বিষয়টি সম্পন্ন হওয়া উচিত এটি নিশ্চিত করার জন্য যে উপাত্ত এবং তা সংগ্রহ ও রেকর্ড করার জন্য ব্যবহৃত প্রক্রিয়া নিখুঁত উপাত্ত উৎপাদনের ক্ষেত্রে কার্যকরী।

করবেনঃ

  • উপাত্ত নিখুঁত হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করার জন্য একত্রিত সমগ্রের সাথে উৎসের উপাত্ত পর্যালোচনা করা (যেমন ইউটিলিটির ইনভয়েস, মিটার লগ্‌, ইত্যাদি)। 
  • ঐতিহাসিক উপাত্তের সাথে বর্তমান বছরটিকে তুলনা করা। যেকোনো গুরুত্বপূর্ণ পরিবর্তন (যেমন, ১০%-এর উপর বৃদ্ধি বা হ্রাস) পরিচিত পরিবর্তন হিসেবে আরোপযোগ্য হওয়া উচিত। যদি না হয়, ন্যায্যতা প্রতিপন্ন করার জন্য অতিরিক্ত তদন্ত হতে পারে।
  • উপাত্ত অনুসরণ করার জন্য সাম্প্রতিকতম এবং হালনাগাদ করা স্প্রেডশীট ব্যবহার করা এবং সমস্তরকম স্বয়ংক্রিয় গণনা / ফর্মূলা সঠিক থাকার বিষয়গুলি নিশ্চিত করা।
  • নিশ্চিত করা যে যথাযথ ইউনিটগুলিকে রিপোর্ট করা হয়েছে এবং যেকোনো ইউনিটকে উৎসের উপাত্ত থেকে রিপোর্ট করা উপাত্তে রূপান্তর করার বিষয়টিকে যাচাই করা।
  • নির্ভুল থাকা সুনিশ্চিত করার জন্য যেকোনো আনুমানিক অথবা অনুমান সংক্রান্ত প্রণালী-বিদ্যা/ গণনাসমূহকে পর্যালোচনা করা

করবেন নাঃ

  • নির্ভুল নয় এমন উপাত্ত রিপোর্ট করা (যেমন, উপাত্তের সূত্র অজানা বা যাচাই করা হয়নি)।
  • আনুমানিক উপাত্ত রিপোর্ট করা যদি তা যাচাইযোগ্য এবং যুক্তিযুক্ত নিখুঁত হিসেবের প্রণালী ও উপাত্ত দ্বারা সমর্থিত না হয়।

এটা কীভাবে যাচাই করা যাবেঃ

একটি কারখানার পানি ব্যবহার সংক্রান্ত উপাত্ত যাচাই করার সময়, যাচাইকারীদের অবশ্যই কারখানার পানিকে অনুসরণ করার কার্যকলাপের সমস্ত বিষয়গুলিকে পর্যালোচনা করতে হবে যাতে ত্রুটি হতে পারে যার অন্তর্ভুক্ত হলোঃ

  • প্রাথমিক উপাত্ত সংগ্রহের প্রক্রিয়াসমূহ এবং উপাত্তের সূত্রগুলো (যেমন, ইনভয়েসগুলি, সাইটে থাকা মিটারগুলি, মিটারের লগগুলি, ইত্যাদি); এবং
  • উপাত্ত জড়ো করার জন্য ব্যবহৃত প্রক্রিয়া এবং উপাদানগুলি (যেমন স্প্রেডশীট গণনা, ইউনিট রূপান্তর, ইত্যাদি)

 

যদি কোনো অসামঞ্জস্য অথবা ত্রুটি লক্ষ্য করা যায়, রিপোর্ট করা তথ্য যেখানে সম্ভব অবশ্যই সংশোধন করতে হবে এবং বিশদ মন্তব্যসমূহ উপাত্ত যাচাইয়ের ক্ষেত্রে অন্তর্ভুক্ত করতে হবে।

পুরো পয়েন্ট 

  • নথিপত্র আবশ্যকঃ
    • পানি খরচের রেকর্ড(যেমন, মাসিক বিল বা বার্ষিক খরচের রেকর্ড; একটি স্প্রেডশীটে (যেমন এক্সেল)-এ প্রণীত মিটারিং রেকর্ড ততক্ষণই ঠিক আছে যতক্ষণ পর্যালোচনার জন্য মিটারিং রেকর্ডও পাওয়া যায়) যার মোট সংখ্যাটি সমস্ত প্রশ্নে দেয়া উত্তরের মাধ্যমে রিপোর্ট করা উপাত্তের সাথে মিলে যায়।
    • যেখানে প্রযোজ্য, মিটার ক্রমাঙ্কনের রেকর্ড (যেমন, নির্মাতার বিবরণী অনুযায়ী)।
    • যেখানে প্রযোজ্য অনুমানের প্রণালীকে নথিবদ্ধ করা
  • কারখানায় পানির সমস্ত উৎসকে সম্পূর্ণ অনুসরণ করা হয়। এর অর্থ হলো যে স্তর ১-এ তালিকাভুক্ত পানির সমস্ত উৎসগুলি সম্পর্কে সমস্ত কলামে সম্পূর্ণ উত্তর রয়েছে যা সঠিক।

 

  • জিজ্ঞাসা করার জন্য প্রশ্নঃ
  • মূল কর্মচারীরা কারখানার পানির উপাত্ত অনুসরণ কার্যক্রম এবং কীভাবে উপাত্তের গুণগত মান বজায় রাখা হয় সে সম্পর্কে অবহিত।


  • পরিদর্শন – শারীরিকভাবে যে বিষয়গুলোকে দেখতে হবেঃ
  • পানির ভেতরে প্রবেশ এবং/অথবা নিষ্কাশনের উৎসগুলিকে সুনিশ্চিত করা
  • যদি কোনো কারখানার ফ্লো মিটার থাকে, ফ্লো-মিটারগুলো যথাযথ জায়গায় আছে কিনা এবং কাজ করছে কিনা তা নিশ্চিত করা
  • ফ্লোমিটারের ছবি তোলা (যদি প্রযোজ্য হয়) 

আংশিক পয়েন্টগুলো 

  • কারখানার পানির অন্তত একটি উৎসের জন্য উপরে উল্লিখিত “পুরো পয়েন্ট”-এর মত একই বাধ্যবাধকতা। এটিকে অবশ্যই সম্পূর্ণরূপে অনুসরণ করতে হবে। এর অর্থ হলো যে স্তর ১-এ উল্লিখিত অন্তত একটি (সমস্ত নয়) উৎসের জন্য সবগুলো কলামে সম্পূর্ণ উত্তর রয়েছে এবং সমস্ত উত্তরকে সমর্থনযোগ্য প্রমাণও রয়েছে।

অন্যান্য রেফারেন্সগুলোঃ এই প্রশ্নটি ব্যবহার করা যায় সাসটেইনিবিলিটি কনসর্টিয়ামের হোম অ্যান্ড অ্যাপারেল টেক্সটাইল্‌স টুলকিট-এর প্রতিক্রিয়া তথ্যভুক্ত করার জন্য। পানির ব্যবহার – সাপ্লাই চেইনের মূল কর্মকুশলতার সূচকটি উত্তরদাতাদেরকে জিজ্ঞাসা করে যে কাপড়ের কারখানাগুলো সমগ্র বার্ষিক পানির ব্যবহার সম্পর্কে প্রতিবেদন দিয়েছে কিনা।  ব্র্যান্ডগুলি কাপড়ের কারখানার উপাত্ত একত্রিত করতে পারে টিএসসির প্রশ্নের উত্তর দেয়ার জন্য।

পানির ব্যবহার – স্তর ২

Questions

উৎস 

  • বেসলাইনটি কি চূড়ান্ত (অ্যাবসল্যুট) নাকি নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড)?
  • বেসলাইন পরিমাণ এবং পরিমাপের ইউনিট কি? 
  • বেসলাইনের (আরম্ভের) বছরটি লিখুন
  • আপনার বেসলাইনটি কিভাবে গণনা হয়েছিল ?
  • বেসলাইনটিকে যাচাই করা হয়েছিল?

উত্তর না / জানা নেই লিখবেন যদি আপনি আপনার বেসলাইন (রূপরেখা স্থির করা) বছরটি এবং কোনো উৎসের পরিমাণ সম্পর্কে জানাতে না পারেন।

এই প্রশ্নের উদ্দেশ্য কি?

উন্নতি বা হ্রাস হওয়ার বিষয়টি দেখানোর জন্য, আপনার শুরুর বিন্দুটি জানা থাকা প্রয়োজন। একটি বেসলাইন স্থির করা (যেমন একটি পরিভাষিত বছরে নির্দিষ্ট একটি প্যারামিটারের বার্ষিক কর্মকুশলতা) আপনাকে পানি বিষয়ক কর্মকুশলতা অনুসরণ করা এবং লক্ষ্য স্থির করার ক্ষেত্রে একটি স্পষ্ট রেফারেন্স বিন্দু রাখতে সক্ষম করবে।

প্রযুক্তিগত নির্দেশনাঃ

“বেসলাইন” হলো শুরুর বিন্দু বা বেঞ্চমার্ক যা আপনি বহু বছর ধরে বারবার নিজের সাথে নিজেকে তুলনা করার জন্য ব্যবহার করতে পারেন।

এফইএম-এ, বেসলাইনটি “অ্যাবসল্যুট” হতে পারে (একটি রিপোর্টিং বছরের সম্পূর্ণ ব্যয়। যেমন, বছর প্রতি মিউনিসিপ্যালের 150,000m3) অথবা একটি পণ্য বা প্রয়োগসংক্রান্ত মেট্রিকের ক্ষেত্রে নিয়মমাফিক “নর্ম্যালাইজড” (যেমন, উৎপাদনের ইউনিট পিছু 0.15m3)। প্রয়োগ-সংক্রান্ত ওঠাপড়ার হিসেব রাখার জন্য উপাত্তকে নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড) করার সুপারিশ করা হয় যেহেতু তা বছরের-পর-বছর উপাত্তের আরো ভালো তুলনা এবং তার ফলে আরো উপযোগী, এবং পদক্ষেপযোগ্য বিশ্লেষণ প্রদান করতে পারে। 

বেসলাইন প্রতিষ্ঠা করার সময়, নিম্নলিখিতগুলি করার বিষয়টি নিশ্চিত করুনঃ

  • পানি ব্যবহারের উপাত্ত স্থায়ী, এবং একটি বেসলাইন নির্ধারণের ক্ষেত্রে ব্যবহারের জন্য যথেষ্ট কিনা নিশ্চিত করুন। হিগ্‌ এফইএম-এ, একটি বেসলাইনে সাধারণত একটি সম্পূর্ণ ক্যালেণ্ডার বছরের উপাত্ত থাকা উচিত। 
    • টীকা:  যদি আপনার কারখানাটি গুরুত্বপূর্ণ কাঠামোগত অথবা প্রয়োগগত পরিবর্তনের মধ্যে দিয়ে গিয়ে থাকে যেমন অর্জন অথবা পণ্যের প্রকারে পরিবর্তন, সাধারণভাবে, আপনার একটি বেসলাইন প্রতিষ্ঠা করা অথবা পুনঃস্থাপন করা উচিত সেই পরিবর্তনগুলি সম্পূর্ণ হয়ে যাওয়ার পরে
  • বেসলাইনটি চূড়ান্ত (অ্যাবসল্যুট) হবে নাকি নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড) হবে তা নির্ধারণ করুন (নর্ম্যালাইজড বেসলাইনগুলিকে পছন্দ করা হয়) 
  • উৎসের উপাত্ত এবং নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজিং) মেট্রিক্সের উপাত্ত সঠিক কিনা তা যাচাই করুন।
  • আগের হিগ্‌ এফইএম ৩.০ প্রতিপাদন থেকে প্রাপ্ত পানি এবং উৎপাদনের আয়তনের উপাত্ত, যোগ্য ব্যক্তিবর্গ দ্বারা করা অভ্যন্তরীণ এবং বহিরাগত অডিট উপাত্ত প্রতিপাদনের গ্রহণযোগ্য সূত্র।
  • যথাযথ বেসলাইন মেট্রিক প্রয়োগ করুন (যেমন, বছর প্রতি অ্যাবসল্যুটের জন্য অথবা বেছে নেয়া নর্ম্যালাইজিং মেট্রিক দিয়ে ভাগ করুন 1,000,000 পিছু 150,000 m3 = 0.15m3/ টুকরো)
  • টীকা: উৎপাদনের সাথে সম্পর্কিত নয় এমন পানি ব্যবহারের জন্য, যেখানে যথাযথ হবে অন্যান্য নিয়মমাফিক মেট্রিক ব্যবহার করা উচিত। উদাহরণ স্বরূপঃ কেবলমাত্র ঘরোয়া পানির ব্যবহারকে ব্যক্তি পিছু নিয়মমাফিক করা যায় (যেমন, দিন অথবা মাস প্রতি ব্যক্তি পিছু 0.005m3)।

টীকাঃ যদি একটি লক্ষ্যের প্রেক্ষিতে কর্মকুশলতাকে মূল্যায়ন করার জন্য বেসলাইনটিকে ব্যবহার করা হয়, তবে বেসলাইনটিকে অপরিবর্তিত রাখতে হবে।

হিগ্‌ এফইএম-এ বেসলাইনের উপাত্ত রিপোর্ট করাঃ

করবেনঃ

  • নির্ভুল থাকাটা নিশ্চিত করার জন্য পানি ব্যবহারের উৎসের উপাত্ত এবং অপরিমার্জিত নিয়মমাফিক মেট্রিক উপাত্ত পর্যালোচনা করুন (পানির ইনভয়েস, মিটার লগ, উৎপাদনের পরিমাণ, ইত্যাদি) একত্রিত মোট পরিমাণের প্রেক্ষিতে যা বেসলাইন(গুলি) নির্ধারণের জন্য ব্যবহৃত হয়েছিল। (যেমন, মাসিক পানি খরচের রেকর্ড দুবার করে খুঁটিয়ে দেখুন নিশ্চিত করার জন্য যে সেগুলো বার্ষিক পানি খরচ যা বেসলাইন গণনা করার জন্য ব্যবহার করা হয়েছিল, তার পরিমাণের সাথে মিলছে)।
  • এফইএম-এ বেসলাইনের যথাযথ ধরনটি নির্বাচন করুন – চূড়ান্ত (অ্যাবসল্যুট) অথবা নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড)।
  • নিশ্চিত করা যে যথাযথ ইউনিটগুলিকে রিপোর্ট করা হয়েছে এবং যেকোনো ইউনিটকে উৎসের উপাত্ত থেকে রিপোর্ট করা উপাত্তে রূপান্তর করার বিষয়টিকে যাচাই করা।
  • বেসলাইনের (আরম্ভের) বছরটি লিখুন। বেসলাইনের উপাত্ত এই বছরটিকেই বর্ণনা করে।
  • বেসলাইনের বছরটিকে কীভাবে গণনা করা হয়েছিল সে বিষয়ে যথেষ্ট পরিমাণে খুঁটিনাটি প্রদান করবেন (যেমন, উৎপাদিত কাপড়ের প্রতি মিটারে পানির খরচ নিয়মমাফিক হয়েছিল)।
  • “বেসলাইন কি যাচাই করা হয়েছিল?” প্রশ্নের উত্তরে কেবলমাত্র হ্যাঁ বেছে নিন। পূর্ববর্তী একটি হিগ্‌ এফইএম ৩.০ যাচাই চলাকালীন বেসলাইন সংক্রান্ত উপাত্ত যদি সম্পুর্ণভাবে যাচাই করা হয়ে থাকে, অথবা যোগ্য ব্যক্তি দ্বারা যদি অভ্যন্তরীণ বা বহিরাগত অডিট করানো হয়ে থাকে।

করবেন নাঃ

  • নির্ভুল নয় এমন বেসলাইন সম্পর্কে রিপোর্ট করা (যেমন, উপাত্তের সূত্র অজানা বা যাচাই করা হয়নি)
  • সেই বেসলাইন সম্পর্কে রিপোর্ট করা যেটি অপর্যাপ্ত উপাত্তের উপর নির্ভরশীল (যেমন, পুরো এক বছরের উপাত্ত নেই)। 
  • আনুমানিক উপাত্ত রিপোর্ট করা যদি তা যাচাইযোগ্য এবং নির্ভুল অনুমান-প্রণালী ও উপাত্ত দ্বারা সমর্থিত না হয় (যেমন, প্রকৌশলগত গণনা)।

এটা কীভাবে যাচাই করা যাবেঃ

কোনো কারখানার বেসলাইন যাচাই করার সময়, যাচাইকারীদের অবশ্যই পর্যালোচনা করতে হবেঃ

  • বেসলাইন বছরটির উৎস সংক্রান্ত সমস্ত উপাত্ত (পানির ইনভয়েস, মিটারিং লগ, উৎপাদনের পরিমাণ) এবং মোট একত্রিত উপাত্ত; এবং/অথবা 
  • যেখানে পাওয়া যাবে সেখানে বেসলাইন উপাত্ত যাচাইয়ের রেকর্ড (যেমন, পূর্ববর্তী হিগ্‌ যাচাই, উপাত্তের গুণগত মানের পর্যালোচনা, অভ্যন্তরীণ অথবা বহিরাগত অডিট, ইত্যাদি)

 

যদি কোনো অসামঞ্জস্য অথবা ত্রুটি লক্ষ্য করা যায়, রিপোর্ট করা তথ্য যেখানে সম্ভব অবশ্যই সংশোধন করতে হবে এবং বিশদ মন্তব্যসমূহ উপাত্ত যাচাইয়ের ক্ষেত্রে অন্তর্ভুক্ত করতে হবে।

হ্যাঁ

  • নথিপত্র আবশ্যকঃ
  • বিবরণ / প্রণালী যা দেখাচ্ছে যে বেসলাইনটিকে কীভাবে গণনা করা হয়েছিল
  • নথিপত্র যা প্রমাণ করে যে বেসলাইন যে বছর স্থির করা হয়েছিল সেই বছরের ব্যয়ের রেকর্ডের সাথে বেসলাইন মিলে যায়
  • বেসলাইন উপাত্তের সত্যতা কীভাবে প্রতিপাদন করা হয়েছিল তা প্রদর্শন করার সক্ষমতা (যেমন, হিগ এফইএম ৩.০ দিয়ে যাচাই করা উপাত্তের ব্যবহার, অভ্যন্তরীণ / বহিরাগত বৈধতা প্রক্রিয়ার ব্যবহার)

 

  • জিজ্ঞাসা করার জন্য প্রশ্নঃ
  • মেট্রিকের ব্যবস্থাপনার জন্য দায়ী দলের সাথে আলোচনা। দলটির অবশ্যই স্পষ্টভাবে ব্যাখ্যা করা উচিত এবং দেখানো উচিত যে বেসলাইন উপাত্তকে কীভাবে বলবৎ করা হয়েছিল (যেমন, হিগ্‌ ৩.০ দিয়ে যাচাই করা উপাত্ত ব্যবহার করা হয়েছিল, অভ্যন্তরীণ বৈধকরণ প্রক্রিয়া, বহিরাগত অডিট ব্যবহার করা হয়েছিল, ইত্যাদি।)

সর্বোচ্চ মাত্রায় পানি ব্যবহারকারীদের চিহ্নিত করার পদ্ধতি আপলোড করুন অথবা যদি আপনার আপলোড করার জন্য কোনো ডকুমেন্ট না থাকে, আপনার পদ্ধতিটির বিবরণ দিন

আপনার কারখানায় সর্বোচ্চ মাত্রায় পানি খরচের কারণগুলো কি ?

আপলোডের সুপারিশঃ প্রক্রিয়া বা সেবার র‍্যাঙ্কিং, অথবা ক্রিয়াকলাপ যেগুলো সবচেয়ে বেশি পানি খরচ করে (পানি ব্যবহারের ভ্যালু সহ)।

আপনার কারখানাতে পানিকে সর্বাধিক কোন বিষয়গুলো প্রভাবিত করে তা জানা গুরুত্বপূর্ণ। পানি তোলা কমানোর জন্য এটি আপনাকে সেই কারণগুলোকে কৌশলগতভাবে লক্ষ্য হিসাবে স্থির করতে সাহায্য করে।

হ্যাঁ উত্তর দিন কেবলমাত্র যদি আপনি মিটারের অবস্থান সহ পানির পাইপলাইনের সম্পূর্ণ ড্রয়িং/  ডায়াগ্রাম / ফ্লোচার্টের মাধ্যমে ভিতরে ঢোকা পানি, পানির খরচ এবং নিষ্ক্রান্ত পানি নথিবদ্ধ করে থাকেন। এর মধ্যে সর্বোচ্চ মাত্রায় পানি ব্যবহারকারী প্রক্রিয়া, মেশিন, অথবা ক্রিয়াকলাপগুলোকে বোঝার জন্য সাবমিটারিং এবং যথাযথভাবে রেকর্ড রাখার বিষয়গুলোকে অন্তর্ভুক্ত করা যেতে পারে।

এই প্রশ্নের উদ্দেশ্য কি?

উদ্দেশ্য হলো তাজাপানির ব্যবহার এবং কারখানার উপর প্রভাবকে মূল্যায়ণ করা এবং কোন প্রক্রিয়াগুলো, মেশিন অথবা ক্রিয়াকলাপগুলো সবচেয়ে বেশি পরিমাণ পানি ব্যবহার করে তা চিহ্নিত করা।

স্থায়ীত্ববাদী প্রচেষ্টাগুলোকে বজায় রাখার জন্য একটি কারখানাকে তার সীমানার ভেতরে পানির প্রভাব নিয়ন্ত্রকগুলোকে চিহ্নিত করতে হবে এবং ক্রমপর্যায়ভুক্ত করতে হবে। পানির প্রভাবের উপর কর্তৃত্বকারী বিষয়গুলো সম্পর্কে একবার বোঝাপড়া তৈরি হয়ে গেলে একটি কারখানা সেই বিষয়গুলোতে লক্ষ্যস্থির করে কৌশলগতভাবে তার ব্যবহার এবং প্রভাব কমাতে পারে। কার্যকরীভাবে নিয়ন্ত্রণ করতে সক্ষম হওয়ার আগে একটি কারখানার অবশ্যই ব্যবহার এবং প্রসঙ্গ-সংশ্লিষ্ট পানির ঝুঁকি পরিমাপ করতে হবে।

প্রযুক্তিগত নির্দেশনাঃ

যদি একটি কারখানা বুঝতে পারে যে পানির ব্যবহারকে কোন বিষয়গুলো প্রভাবিত করছে এবং কীসের প্রভাব সবচেয়ে বেশি, তাহলে তার পরবর্তী প্রশ্নগুলো যা জিজ্ঞাসা করা হবে তার উত্তর দেয়ার জন্য বিবরণ দিতে হবে। কীভাবে সর্বোচ্চ মাত্রার পানি ব্যবহারের প্রক্রিয়া/ ক্রিয়াকলাপকে চিহ্নিত করা হয় এবং নির্দিষ্টভাবে কী কারণে উচ্চ মাত্রায় পানি ব্যবহার হচ্ছে, তা কারখানাকে অবশ্যই দেখাতে সক্ষম হতে হবে।

এই প্রশ্নটির উত্তর যথাযথভাবে দেয়ার জন্য একটি কারখানার অবশ্যই বুঝতে হবে যে কতটা পানি একটি সুনির্দিষ্ট এলাকা / টুল / প্রক্রিয়ার মধ্যে যাচ্ছে। কোথায় ব্যবহার মিটারে হিসেব করা হচ্ছে অথবা হিসাব করা যায় সেটি সহ কারখানার প্রক্রিয়াগুলোর ফ্লো ডায়াগ্রাম হলো উচ্চ মাত্রার পানি ব্যবহারকারী ক্ষেত্রগুলোকে চিহ্নিত করার প্রথম পদক্ষেপ।

একটি পদ্ধতি হতে পারে পানির অডিটের একটি টেমপ্লেট তৈরি করা। এর অন্তর্ভুক্ত হলো কারখানার সমস্ত পানি ব্যবহারকারী সরঞ্জাম হাতে লিখে তালিকাভুক্ত করা এবং তারপরে মিটার, চটজলদি পরীক্ষা, অথবা হিসাবের মাধ্যমে চিহ্নিত করা যে তালিকার প্রতিটি বস্তু কতটা পানি ব্যবহার করে। একবার সম্পূর্ণ হলে, অনুরূপ বস্তুগুলোকে দলবদ্ধ করে সমগ্র পরিমাণ হিসেব করে নেয়া যায় যেমন, বাথরুমের সাথে রঁজক-সরঞ্জামের তুলনা করার জন্য। বিভিন্ন ক্ষেত্রগুলো কীভাবে কাজ করছে তা জানার জন্য এটি ভালো পদ্ধতি তবে শেষ করার জন্য সময় এবং পরিশ্রম লাগে। যেহেতু পানির অডিট যেকোনো একটি সময়ের ভিত্তিতে একটি একক দৃষ্টিকোণ, সময়ের প্রেক্ষিতে তা কর্মকুশলতাকে বিচার করতে সক্ষম নয়।

আরও তথ্যের জন্য কোথায় যেতে হবেঃ  

  1. পানির অডিটের ধাপগুলো

http://www.facilitiesnet.com/green/article/Steps-in-a-Water-Audit-Facilities-Management-Green-Feature–9364

  1. পানির অডিটের উপাত্ত সংগ্রহের শিট

https://www.brewersassociation.org/attachments/0001/1518/Water_Water_Audit_Data_checklist.pdf

  1. তন্তুর ওয়েট প্রসেসিঙের জন্য পানির হিসাব নিরূপণের উপকরণ

https://watercalculator.dnvgl.com

কারখানা জুড়ে পানি পরিমাপের রিডিং নেয়ার জন্য কারখানাগুলো বহনযোগ্য পানির মিটারে বিনিয়োগ করতে চাইতে পারে। ব্যাটারি-চালিত ডিজিট্যাল ইন-লাইন মিটার এবং পাইপের চারদিকে উঠে যাওয়া নন-ইনভেসিভ আল্ট্রাসোনিক মিটার উভয়ই পাওয়া যায়।

এটা কীভাবে যাচাই করা যাবেঃ

হ্যাঁ

  • নথিপত্র আবশ্যকঃ

(কারখানা দেখাতে পারে যে তারা কারখানার ভিতরে ঢোকা পানি, পানির ক্ষতি এবং নির্গত পানি নিচের এক বা দুই ভাবেই মূল্যায়ণ করেছে):

  • কারখানার নথিভুক্ত পানি মূল্যায়ণ (অভ্যন্তরীণভাবে অথবা একজন তৃতীয় পক্ষ দ্বারা নির্বাহ করা হয়েছে) যেটি সেই সমস্ত দৃষ্টিকোণগুলোকে চিহ্নিত করবে যেগুলোর ফলে সর্বাধিক পানি তোলা হয়ে থাকে
  • কারখানার ফ্লোচার্ট যার অন্তর্ভুক্ত হলো পানির ব্যবহার এবং বর্জ্যপানির প্রবাহের জন্য কোথায় পরিমাপ করা হয়েছে।


  • জিজ্ঞাসা করার জন্য প্রশ্নঃ
  • অভ্যন্তরীণভাবে এবং বহিরাগত মাধ্যমে নির্বাহ করা পানির মূল্যায়ণের ফলাফল থেকে কর্তৃপক্ষ এবং মূল কর্মচারীরা জানেন যে সাইটের কোন পরিপ্রেক্ষিতগুলো পানি ব্যবহারের ক্ষেত্রে সবচেয়ে বেশি দায়ী
  • স্থানীয় পানির চ্যালেঞ্জগুলো এবং কীভাবে এগুলোর প্রতি সাইটের প্রভাব পড়ে তা কর্তৃপক্ষ এবং মূল কর্মচারীরা জানেন – উদাহরণ স্বরূপ ভূগর্ভ্যস্থ পানির সমস্যায় ভূক্তভোগী একটি অঞ্চলে কারখানাটি উচ্চ মাত্রায় ভূগর্ভ্যস্থ পানি ব্যবহার করছে কিনা।


  • পরিদর্শন – শারীরিকভাবে যে বিষয়গুলোকে দেখতে হবেঃ
  • পানির পাইপলাইনের আঁকা ছবি (ড্রয়িং) / ডায়াগ্রাম / ফ্লোচার্টের পর্যালোচনা করুন, কারখানাটি তাদের পানির ব্যবহারবিধি সম্পর্কে ওয়াকিবহাল কিনা দেখুন
  • পানির ব্যবহারের জন্য সাব মিটারিং এবং যথাযথ রেকর্ড রাখা

 

উৎস 

  • এই উৎস থেকে পানি ব্যবহার হ্রাস করার জন্য আপনার কারখানা কি লক্ষ্য স্থির করেছে?
  • এই উৎস থেকে পানি ব্যবহার পরিবর্তনের জন্য আপনার লক্ষ্য কি ? (হ্রাস করার কোনো লক্ষ্যের জন্য একটি নেতিবাচক শতকরা হার, এবং বৃদ্ধির লক্ষ্যের জন্য একটি ইতিবাচক শতকরা হার প্রবেশ করান।)
  • লক্ষ্যের বছরটি লিখুন 
  • এটি কি একটি নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড) নাকি চূড়ান্ত (অ্যাবসল্যুট) লক্ষ্য?
  • এই লক্ষ্য পূরণের জন্য পরিকল্পিত পদ্ধতির বিবরণ দিন।

আপলোড করুনঃ পানি তোলা কমানোর জন্য স্থির করা লক্ষ্যগুলো বিবৃত করে যেসব নথিপত্র

উত্তর দিন না/ জানা নেই যদি আপনি আপনার লক্ষ্যমাত্রার পরিমাণ, বছর এবং কোনো উৎসের জন্য এটি চূড়ান্ত (অ্যাবসল্যুট) নাকি নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড) তা বলতে না পারেন

আপনি পুরো পয়েন্ট পাবেন যদি আপনি সেইসব পানির উৎসের জন্য লক্ষ্য স্থির করেন যেগুলো আপনার মোট পানির ব্যবহারের ৮০% বা ততোধিক পূরণ করে। 

আপনি আংশিক পয়েন্ট পাবেন যদি আপনি সেইসব পানির উৎসের জন্য লক্ষ্য স্থির করেন যেগুলো আপনার মোট পানির পরিমাণের ৫০-৭৯% পূরণ করে। আপনার পানি ব্যবহারের বৃহত্তম উৎসগুলো যা পরিবেশগত ক্ষতি বৃদ্ধি করে, সেগুলোকে হ্রাস করার জন্য এটি আপনার পুরস্কার।

দয়া করে লক্ষ্য করুনঃ কোন উৎসগুলোকে আপনি উন্নতিবিধান করার লক্ষ্য-সংবলিত বলে রিপোর্ট করেন তার উপর ভিত্তি করে সম্পূর্ণ বা আংশিক পয়েন্ট স্বয়ংক্রিয়ভাবেই গণনা হয়ে যায়।

নিশ্চিত করুন যেন আপনি প্রবেশকরান হ্রাসজনক লক্ষ্যের জন্য নেতিবাচক শতকরা হার (যেমন ৫% হ্রাস করার জন্য -৫), এবং একটি বৃদ্ধিমূলক লক্ষ্যের জন্য ইতিবাচক শতকরা হার (যেমন ব্যবহারের ক্ষেত্রে ৫% বৃদ্ধির জন্য ৫)

এই প্রশ্নের উদ্দেশ্য কি?

আপনার কারখানায় পানির ব্যবহার হ্রাসের জন্য অন্তত একটি লক্ষ্য প্রতিষ্ঠা করা।

স্থায়ীত্ববাদী (সাস্‌টেইনেব্‌ল) সংস্থাগুলো পরিবেশের উপর তাদের ক্ষতিকর প্রভাব কমানোর জন্য অনবরত কাজ করে। এখন যখন আপনি জানেন যে আপনার কারখানা কতটা পানি ব্যবহার করে (আপনার “বেসলাইন”), এবং আপনার পানি ব্যবহারের সর্বোচ্চ বর্ধকগুলো, আপনি আপনার পানির ব্যবহার কমানোর জন্য লক্ষ্য স্থির করতে তৈরি।

লক্ষ্য দীর্ঘমেয়াদী বা স্বল্পমেয়াদী হতে পারে (স্বল্পমেয়াদী = ৩ বছরের কম, দীর্ঘমেয়াদী = ৩ বছরের বেশি)। একবার স্থির হয়ে গেলে, সাফল্য পাওয়ার পথে থাকার ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় পরিবর্তনগুলোকে নিশ্চিত করার জন্য অন্তত ত্রৈমাসিক হারে একবার উন্নতিবিধানের বিষয়টিকে পর্যালোচনা করতে হবে।

প্রযুক্তিগত নির্দেশনাঃ

একটি লক্ষ্যের ক্ষেত্রে বেসলাইনের প্রেক্ষিতে একটি নির্দিষ্ট তারিখের মধ্যে যথেষ্ট পরিমাণে উন্নতি করার জন্য চূড়ান্ত (অ্যাবসল্যুট) বা (নর্ম্যালাইজড) নিয়মমাফিক মেট্রিক ব্যবহার করা যায়। হিগ্‌ এফইএম-এর জন্য, হ্রাস-সংক্রান্ত লক্ষ্যকে উৎপাদনের আয়তনের মেট্রিকের সাথে (সাইটের তথ্য বিভাগে বেছে নেয়া হয়ঃ বার্ষিক আয়তনের ইউনিট) অথবা অন্যান্য যথাযথ প্রয়োগ-সংক্রান্ত মেট্রিকের সাথে নর্ম্যালাইজ করা যেতে পারে । নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড) একটি লক্ষ্য কেবলমাত্র ব্যবসায় পরিবর্তনের ফলাফল যেমন উৎপাদন হ্রাস না হয়ে থেকে, উন্নতি প্রকৃতপক্ষে ঘটলে আপনাকে তা প্রদর্শন করে। নর্ম্যালাইজড লক্ষ্যের একটি উদাহরণ হলো এক কিলোগ্রাম বিক্রয়যোগ্য পণ্যের উৎপাদনের জন্য ব্যবহৃত পানির কিউবিক মিটার  (m3/কেজি).

এই প্রশ্নের উত্তরে হ্যাঁ লেখার জন্য আনুষ্ঠানিক লক্ষ্য স্থির করা এফইএম-এর ক্ষেত্রে আবশ্যক। আনুষ্ঠানিক উন্নতিবিধানের লক্ষ্য স্থির করার সময়, নিম্নলিখিত বিষয়গুলি করা নিশ্চিত করবেনঃ

  • পানির পরিমাণ কতটা কমানো যায় সেটি গণনা করার জন্য উন্নতিবিধানের সুযোগগুলো এবং পদক্ষেপের আনুষ্ঠানিক মূল্যায়নের ভিত্তিতে লক্ষ্য স্থির করুন (যেমন যন্ত্রপাতি পালটানো অথবা আপগ্রেড করা)।
    • উদাহরণ স্বরূপ, একটি কাউন্টার কারেন্ট প্রক্ষালন ব্যবস্থা বসানোর মূল্যায়নের ভিত্তিতে একটি লক্ষ্য স্থির করার ফলে পৌরসভা থেকে প্রাপ্ত পানির খরচের বার্ষিক হার উৎপাদিত কাপড়ের প্রতি স্কোয়্যার মিটারের ক্ষেত্রে ৫% কম হওয়ার আশা করা যায় যা প্রক্ষালন ব্যবস্থা নির্মাতার সবিস্তার বিবরণী এবং প্রত্যাশিত উৎপাদনের আবশ্যকতার আনুষ্ঠানিক পর্যালোচনার ভিত্তিতে গণনা করা হয়েছিল।  অথবা ১০% হ্রাসের লক্ষ্য যেটি অর্জন করা যাবে সমস্ত ল্যাভাটরিতে কম প্রবাহের পানির ট্যাপ বসানোর মাধ্যমে যা কারখানার বেসলাইন পানি ব্যবহারের উপাত্ত এবং বসানো হবে এরকম সমস্ত ট্যাপগুলির হ্রাসপ্রাপ্ত প্রবাহের হারের ভিত্তিতে গণনা করা হয়েছিল।
  • প্রকৃত লক্ষ্যের পরিমাণ সংজ্ঞায়িত করুন, যা শতকরা হারে প্রকাশ করা হয় (যেমন, পৌরসভার পানির নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড) ব্যবহার কাপড়ের স্কোয়্যার মিটার পিছু ৫% হ্রাস করা)। এটি অবশ্যই উপরে যেভাবে বলা হয়েছে সেরকম আনুষ্ঠানিক মূল্যায়নের ভিত্তিতে হবে।
  • লক্ষ্য উৎপাদন অথবা কার্যসম্পাদনা-সংক্রান্ত মেট্রিকের ক্ষেত্রে লক্ষ্য চূড়ান্ত (অ্যাবসল্যুট) হবে নাকি নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড) হবে তা নির্ধারণ করুন।
  • লক্ষ্যের শুরুর তারিখটি নির্দেশ করুন (যেমন, “বেসলাইন”)
  • লক্ষ্যশেষের তারিখটি নির্দেশ করুন, যার অর্থ হলো আবশ্যক উন্নতিবিধান সম্পূর্ণ হওয়ার উদ্দেশিত তারিখ।
  • উপযুক্ত পরিমাপক ইউনিটটি নির্দেশ করুন
  • লক্ষ্য পর্যালোচনা করার প্রক্রিয়া প্রতিষ্ঠা করুন। নির্দেশিত লক্ষ্যে পৌঁছানোর জন্য গৃহীত পদক্ষেপগুলো এবং তার অগ্রগতির মূল্যায়ন এই পর্যালোচনাতে অন্তর্ভুক্ত হওয়া উচিত। ত্রৈমাসিক পর্যালোচনার জন্য প্রস্তাবনা দেয়া হচ্ছে।
  • সাইটের পানির ব্যবহার হ্রাসের ক্ষেত্রে লক্ষ্যটি যেন প্রাসঙ্গিক হয় তা নিশ্চিত করা (যেমন কারখানাতে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ পানি ব্যবহারের ক্ষেত্রে মনোনিবেশ করা)

হিগ্‌ এফইএম-এ লক্ষ্য রিপোর্ট করাঃ

করবেনঃ

  • উপরে উল্লিখিত সমস্ত বিষয়গুলি করা হয়েছে এবং তথ্য নির্ভুল রয়েছে তা নিশ্চিত করার জন্য লক্ষ্য পর্যালোচনা করবেন।  
  • লক্ষ্যস্থির করা হ্রাস বা উন্নতিকে শতকরা হার হিসেবে প্রবেশ করান। হ্রাসজনক লক্ষ্যের জন্য একটি নেতিবাচক শতকরা হার (যেমন ৫% হ্রাস করার জন্য -৫), এবং একটি  বৃদ্ধিমূলক লক্ষ্যের জন্য ইতিবাচক শতকরা হার (যেমন ব্যবহারের ক্ষেত্রে ৫% বৃদ্ধির জন্য ৫) প্রবেশ করানোর বিষয়টি নিশ্চিত করবেন।
  • এফইএম-এ বেসলাইনের যথাযথ ধরনটি নির্বাচন করুন – চূড়ান্ত (অ্যাবসল্যুট) অথবা নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড)।
  • “এই লক্ষ্য অর্জনের জন্য পরিকল্পিত মাপকাঠিগুলির বর্ণনা দিনঃ” লেখা জায়গাটিতে লক্ষ্যমাত্রা কীভাবে পূরণ হবে সে বিষয়ে  পর্যাপ্ত খুঁটিনাটি প্রদান করুন (যেমন, নিয়মমাফিক পৌরসভার পানির ক্ষেত্রে ভেতরের খরচ ব্যক্তি পিছু ৫% হ্রাস করার বিষয়টি অর্জন করা যাবে নিম্ন-প্রবাহসম্পন্ন এবং স্বয়ংক্রিয়ভাবে বন্ধ হওয়া ট্যাপ কারখানার সমস্ত ল্যাভাটরিতে বসানোর মাধ্যমে)।

করবেন নাঃ

  • নির্ভুল নয় এমন লক্ষ্য সম্পর্কে রিপোর্ট করা (যেমন, উপাত্তের সূত্র অজানা বা যাচাই করা হয়নি)
  • অপর্যাপ্ত উপাত্তের উপর নির্ভরশীল লক্ষ্য সম্পর্কে রিপোর্ট করা। (যেমন, হ্রাসের একটি লক্ষ্যমাত্রা যা বিকল্পগুলির একটি আনুষ্ঠানিক মূল্যায়নের উপর নির্ভরশীল নয় যেমন বিবৃত লক্ষ্যমাত্রা পূরণের জন্য সরঞ্জামগুলোকে আপগ্রেড করা অথবা লক্ষ্যমাত্রা পূরণের জন্য পদক্ষেপ নির্দেশ করা হয়নি।)
  • আনুমানিক লক্ষ্যমাত্রা সম্পর্কে রিপোর্ট করা যদি তা যাচাইযোগ্য এবং নির্ভুল অনুমান-প্রণালী ও উপাত্ত দ্বারা সমর্থিত না হয় (যেমন, প্রকৌশলগত গণনা)।

এটা কীভাবে যাচাই করা যাবেঃ

কোনো কারখানার বেসলাইন যাচাই করার সময়, যাচাইকারীদের অবশ্যই পর্যালোচনা করতে হবেঃ

  • পরিপোষক সমস্ত প্রমাণ (যেমন গণনাসমূহ, পানি ব্যবহার সংক্রান্ত উপাত্ত এবং বেসলাইনগুলি, নতুন/প্রস্তাবিত সরঞ্জামের বিবরণ, ইত্যাদি) যাতে লক্ষ্যমাত্রা যে উন্নতিবিধানের সুযোগসমূহের একটি আনুষ্ঠানিক মূল্যায়নের ভিত্তিতে স্থির হয়েছে তা যাচাই করা যায়। 
  • মূল্যায়ন হওয়া লক্ষ্যমাত্রা এবং সুযোগসমূহ কারখানার পানির ব্যবহারের সাথে প্রাসঙ্গিক থাকা নিশ্চিত করার জন্য কারখানার পানির উৎসের সাথে সম্পর্কিত কর্মকান্ড এবং ব্যবহার।

যদি কোনো অসামঞ্জস্য অথবা ত্রুটি লক্ষ্য করা যায়, রিপোর্ট করা তথ্য যেখানে সম্ভব অবশ্যই সংশোধন করতে হবে এবং বিশদ মন্তব্যসমূহ উপাত্ত যাচাইয়ের ক্ষেত্রে অন্তর্ভুক্ত করতে হবে।

পুরো পয়েন্ট 

  • নথিপত্র আবশ্যকঃ
  • পরিপোষক নথিপত্র যা প্রদর্শন করে যে লক্ষ্যমাত্রাগুলি নির্ধারিত হয়েছে হ্রাস / উন্নতিবিধানের সুযোগসমূহের একটি আনুষ্ঠানিক মূল্যায়নের ভিত্তিতে (যেমন, গণনা, পানির ব্যবহারের উপাত্ত এবং বেসলাইনগুলো, নতুন/ প্রস্তাবিত সরঞ্জামের বিবরণ, ইত্যাদি)
  • কীভাবে লক্ষ্যমাত্রা(গুলি) গণনা করা হয় তা দেখানোর জন্য পরিপোষক প্রণালী এবং গণনা
  • লক্ষ্যমাত্রা অর্জন করার জন্য মাপকাঠি/পদক্ষেপের তালিকা
  • লক্ষ্যমাত্রা সম্পর্কে সংশ্লিষ্ট কর্মীদের জানানো হয়েছিল এবং কারখানার গুরুত্বপূর্ণ পানির ব্যবহারবিধির সাথে সংযুক্ত হয়েছিল যা প্রশ্ন ৩-এ চিহ্নিত হয়েছে।
  • সংযোগের পদ্ধতিগুলোর অন্তর্ভুক্ত হতে পারেঃ সভা, বুলেটিন বোর্ডের পোস্ট, নিউজলেটার ছাপা, অন্য কোনো লিখিত ভাবে সেইসব কর্মীদের সাথে সংযোগ স্থাপন যারা কারখানায় শক্তির ব্যবহারবিধির সাথে সম্পর্কিত কাজের সাথে জড়িত।
    • টীকাঃ যদি লক্ষ্যগুলো সম্প্রতি স্থির করা হয়ে থাকে, পর্যালোচনার কাঠামো এবং দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রতিনিধিদেরকে অবশ্যই ইতিমধ্যেই কার্যকর থাকতে হবে।

 

  • জিজ্ঞাসা করার জন্য প্রশ্নঃ
  • লক্ষ্য ব্যবস্থাপনার জন্য দায়বদ্ধ দলের সাথে আলোচনা । দলটিকে অবশ্যই স্পষ্টভাবে ব্যাখ্যা করতে এবং প্রদর্শন করতে হবে লক্ষ্যমাত্রা কীভাবে নির্ধারণ করা হয়েছিল (যেমন, উন্নতিবিধানের সুযোগসমূহের মূল্যায়ন থেকে গণনায় প্রাপ্ত হ্রাসের সংখ্যা) এবং কীভাবে লক্ষ্যমাত্রাটিকে পর্যবেক্ষণে রাখা এবং পর্যালোচনা করা হয়েছিল।
  • কর্তৃপক্ষ সক্রিয়ভাবে পানি সংরক্ষণ করাকে প্রোমোট করেন বা উৎসাহ দেন
  • কর্তৃপক্ষ নিরন্তর উন্নতিবিধান করছেন এবং বার্ষিক ভিত্তিতে পানি কমানোর লক্ষ্যগুলোর পর্যালোচনা করছেন 
  • পানি ব্যবহার এবং গ্রিনহাউস গ্যাস নির্গমন সম্পর্কিত উপাত্ত প্রাসঙ্গিক অভ্যন্তরীণ এবং/অথবা বহিরাগত স্টেকহোল্ডারদের কাছে উপলব্ধ করা হয় যাতে লক্ষ্য পূরণের জন্য দায়বদ্ধতা বজায় থাকে

আংশিক পয়েন্টগুলো 

  • “হ্যাঁ” উত্তরের মতোই একই আবশ্যকতা কিন্তু শুধুমাত্র উৎসগুলোর জন্য (অথবা একটি উৎস) যা একত্রে ৫০-৭৯% পানি ব্যবহার করে (এই উপাত্ত খুঁজে পাওয়া গেছে প্রশ্ন ১-এর % অবদানের গণনায়)।

এই প্রশ্নের জন্য পয়েন্ট কীভাবে দেয়া হবে তার উদাহরণঃ

যদি কোনো কারখানার পানির উৎসগুলি নিম্নলিখিত হয়ঃ

  • ভেতরে এসে ব্যবহার হওয়া পানির ৯০% পৌরসভা থেকে আসে;
  • সাইটে ব্যবহৃত পানির ১০% আসে কুয়ো থেকে

পুরো পয়েন্ট অর্জন করার জন্য, কারখানাটিকে এরকম লক্ষ্যমাত্রা রাখতে হবে যেগুলি পৌরসভার পানির ব্যবহারের ক্ষেত্রে উদ্দেশিত কারণ এই উৎসটি কারখানার মোট পানি প্রত্যাহারের ৮০%-এরও বেশি পূরণ করে। 

যদি লক্ষ্যমাত্রা কেবলমাত্র ভূগর্ভ্যস্থ পানির জন্যই স্থির করা হয়, তাহলে কোনো পয়েন্ট দেয়া হবে না যেহেতু এই উৎসটি কারখানার মোট পানি প্রত্যাহারের ৫০%-এরও কম পূরণ করে।

লক্ষ্য করবেন যে লক্ষ্যস্থির করা অথবা প্রকৃত পানি হ্রাসের পরিমাণ (যেমন, m3-তে পরিমাণ) পুরস্কৃত পয়েন্টগুলি নির্ধারণের জন্য ব্যবহার হয় না। 

এর লক্ষ্য হলো কারখানাগুলিকে পানি প্রত্যাহারের সবচেয়ে বড় উৎসগুলিকে কমিয়ে আনার লক্ষ্য স্থির করার জন্য পুরস্কৃত করা যা  সর্বাধিক কার্যকরীভাবে পরিবেশগত ক্ষতি কমায়।

হ্যাঁ-সূচক উত্তর দিন  যদি আপনার বাস্তবায়ন সংক্রান্ত এমন কোনো পরিকল্পনা থাকে যা দেখায় যে আপনি আপনার হ্রাস-সংক্রান্ত লক্ষ্য অর্জনের জন্য পদক্ষেপ নিচ্ছেন।

আংশিক হ্যাঁ-সূচক উত্তর দিন যদি আপনার কোনো পরিকল্পনা থাকে কিন্তু করণীয় সব কাজ আপনি না শুরু করে থাকেন।

এই প্রশ্নের উদ্দেশ্য কি?

পদ্ধতিগতভাবে পানির ব্যবহার কমানোর জন্য লক্ষ্য-স্থির করা একটি গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ, কিন্তু আপনার কারখানাকে অবশ্যই উন্নতিবিধানের জন্য হ্রাস-সংক্রান্ত পদক্ষেপ নিতে হবে। বাস্তবায়নের জন্য একটি পরিকল্পনা আপনার লক্ষ্যস্থির করা হ্রাস অর্জনের জন্য আপনি যে পদক্ষেপগুলো গ্রহণ করছেন তাদের দেখায়।  কিছু কারখানার নির্দিষ্ট লক্ষ্য ছাড়াই বাস্তবায়ন পরিকল্পনা থাকতে পারে।  উন্নতিবিধানের সুযোগকে চিহ্নিত করতে এবং সমাধান প্রস্তাব করার জন্যও কর্তৃপক্ষের একনিষ্ঠতা, কর্মীদের সচেতনতা, এবং অংশগ্রহণ জরুরি, এবং যদি প্রয়োজন হয়, আসল বা ব্যয়ের জন্য নির্ধারিত ডলার ব্যবহার করে প্রস্তাবিত সমাধান সফলভাবে বাস্তবায়ন করে পরিবর্তন করা প্রয়োজন। সমাধান কার্যকরী করার অভিমুখী বহু সম্ভাব্য পথের মধ্যে প্রায়শই অন্তর্ভুক্ত থাকে তৃতীয় পক্ষীয় পরামর্শ, লিখিত নথিপত্র এবং প্রযুক্তিগত গবেষণা, ডিজাইনের ফার্ম, এবং প্রথম ধাপের পরীক্ষানিরীক্ষা।  শুরু থেকেই একটি সংগঠিত এবং সুসমন্বিত উন্নতি-সংক্রান্ত পদক্ষেপ যাতে নেয়া যায় তা সুনিশ্চিত করার জন্য লক্ষ্য অর্জনের সাথে সম্পর্কিত সমস্ত কর্মকাণ্ড একটি বাস্তবায়ন পরিকল্পনার অংশ হওয়া উচিত।

প্রযুক্তিগত নির্দেশনাঃ

পানি সংরক্ষণ প্রকল্পগুলোর জন্য সংযোগ ব্যবস্থা এবং অনুমোদনের জন্য দায়বদ্ধ একটি ব্যবসায়িক প্রক্রিয়া কারখানার দ্বারা নথিবদ্ধ এবং আনুষ্ঠানিক হওয়া উচিত।

কর্ম-পদক্ষেপের মধ্যে অন্তর্ভুক্ত থাকা উচিতঃ 

  1. পানি বাঁচানোর সুযোগগুলোকে চিহ্নিতকরণ
  2. পানি বাঁচানোর বিকল্পগুলো, বিনিয়োগ এবং বিনিয়োগ ফেরত (রিটার্ন অন ইনভেস্টমেন্ট) মূল্যায়ন করা
  3. বেছে নেয়া সমাধানের জন্য আর্থিক অনুমোদন দেয়া
  4. সমাধান বাস্তবায়ন করা এবং হ্রাসগুলোকে অনুসরণ করা
  5. অগ্রগতি পর্যবেক্ষণ করার জন্য কার্য-পদক্ষেপের নিয়মিত পর্যালোচনা করানো

পানি বাঁচানোর সুযোগগুলো চিহ্নিত করার উপায়গুলোর মধ্যে কয়েকটি হতে পারে স্বতন্ত্র কর্মী, পানি সংক্রান্ত অডিট, এবং পানির ভারসাম্য। সঞ্চয়ের কিছু সরল বিকল্পগুলি রক্ষণাবেক্ষণের সাথে যুক্ত যেমন ছিদ্র সারিয়ে ফেলা। সঞ্চয়ের অন্যান্য বিকল্পগুলো আরো জটিল হতে পারে যার মধ্যে যন্ত্রপাতি/রাসায়নিক প্রক্রিয়াকরণ বা প্রতিস্থাপন বাধ্যতামূলক হতে পারে যেমনঃ

  • প্রক্রিয়া এবং রেসিপিকে উন্নততর করা
  • সর্বোত্তম অনুকূল প্রক্রিয়ার শর্তগুলো এবং দ্রুততার বাধ্যবাধকতা খুঁটিয়ে দেখা
  • প্রথমবারেই-সঠিক হওয়া অর্জন করার মাত্রা বাড়ানো
  • ধুয়ে-ফেলা ধরনের আচরণকে উন্নত করতে সক্ষম রাসায়নিকগুলোর ব্যবহার
  • প্রক্রিয়াগুলোর মিশ্রণঃ দুটি স্তরের জন্য একই বাথ্‌-এ রঞ্জন এবং রাসায়নিক পদার্থের ব্যবহারের সম্ভাবনা
  • অন্যান্য প্রক্রিয়ার জন্য ধোয়াধুয়ির আগে হালকাভাবে ধোয়া অথবা ধোয়ার পানি ব্যবহার করার সম্ভাবনা

মূল্যই সাধারণভাবে সবচেয়ে উদ্বেগের বিষয়, সেই কারণে একটি কারখানার উচিত বিনিয়োগ ফেরতের বিষয়গুলোকে মূল্যায়ণ করা যেহেতু উন্নয়নের জন্য বিনিয়োগের প্রয়োজন কিন্তু পানি ব্যবহারের খরচকে কমাতে সক্ষম হতে পারে এবং শক্তি ও রাসায়নিক সঞ্চয়ও এর অন্তর্ভুক্ত হতে পারে। একবার সমাধান খুঁজে নেয়া গেলে কারখানাটির বাস্তবায়নকে সময়সীমাভুক্ত করা এবং সহায়তা প্রদান করা উচিত। এটি ভাল্‌ভ বদলানোর মতো সহজ অথবা একটি তৃতীয় পক্ষের মাধ্যমে নকশা বানানোর চুক্তি তৈরি করার মতো কঠিন। শেষ পর্যন্ত এই প্রশ্নটি সেই কাঠামোর দিকে তাকিয়ে রয়েছে যেটি হলো যে কারখানাটি কীভাবে মজবুত প্রবর্তনগুলোর জন্য পদক্ষেপ গ্রহণ করে।

আপনার বাস্তবায়ন পরিকল্পনার অন্তর্ভুক্ত হতে পারে যেকোনো পদক্ষেপ যা পানির ব্যবহারকে কমিয়ে দেয়। পানি সঞ্চয় করার পরিমাপের অন্তর্ভুক্ত হলোঃ

  • প্রক্রিয়ার শেষে জমে থাকা বস্তু সংগ্রহ এবং পুনর্ব্যবহার
  • শীতলীকরণের জন্য নেয়া পানি সংগ্রহ এবং পুনর্ব্যবহার
  • জিরো লিক্যুইড ডিসচার্জ (জেডএলডি) পানি পরিশোধন প্রযুক্তি ব্যবহার করে ৮০%-এরও বেশি পানি রিসাইক্‌ল করা এবং পুনর্ব্যবহার করা।
  • প্রক্রিয়াজাত বা ধোয়ার পানি সংগ্রহ এবং পুনর্ব্যবহার (অন্তত ৩০%-এর সুপারিশ রয়েছে)
  • নিম্ন লিকারের রঞ্জক মেশিন ব্যবহার
  • প্রতিটি স্বতন্ত্র প্রক্রিয়ার রেসিপিতে লিকারের অনুপাত দেখানো
  • নিরন্তর ফ্লো ওয়াশের বদলে ব্যাচ হিসেবে ধোয়ার প্রবর্তন
  • ডাই (রঞ্জক পদার্থ) এবং অক্সিলিয়ারির জন্য স্বয়ংক্রিয় বন্টন ব্যবস্থা (রাসায়নিক যার অন্তর্ভুক্ত হলো লবণ)

সর্বোত্তম অভ্যাসগুলোর সুপারিশের মধ্যে আছেঃ

  • যন্ত্রপাতি পরিষ্কার/ধোয়াধুয়ির জন্য রঞ্জক পদার্থের ব্যাচের সময়সীমা তৈরি করা (ডাই মেশিনে অনুরূপ রঙগুলোকে শ্রেণীবদ্ধ করা)
  • প্রবাহে কম পিগ্‌মেন্ট সহ কম সংখ্যক বার ধোয়ার জন্য ডাই ফিক্সেশনের অনুপাত বৃদ্ধি করা
  • পানি কম ব্যবহার করার স্বার্থে উন্নতমানের রাসায়নিক ব্যবহার
  • পানি সঞ্চয়ের জন্য আধুনিক যন্ত্রপাতি ইনস্টল করা।
  • ফ্লো-মিটার প্রক্রিয়া অনুযায়ী পানির ব্যবহার সম্পর্কে খেয়াল রাখে
  • পানির সংরক্ষণ বিষয়ে কর্মী সচেতনতা
  • ছিদ্র (অভ্যাসগত ভাবে নষ্ট হওয়া) বন্ধ করা

আরও তথ্যের জন্য কোথায় যেতে হবেঃ 

এটা কীভাবে যাচাই করা যাবেঃ

হ্যাঁ

  • নথিপত্র আবশ্যকঃ
  • পানি ব্যবহার হ্রাসের তালিকা যার অন্তর্ভুক্ত হলো সুনির্দিষ্ট প্রকল্প, হ্রাসের লক্ষ্য, তারিখ, এবং প্রগতি যা মোট পানি ব্যবহারের ৮০% বা তারও বেশি এবং/অথবা
  • বহিরাগত পক্ষের দ্বারা পানির অডিট অথবা মূল্যায়ণ যার মাধ্যমে পানি হ্রাসের সুযোগ এবং বাস্তবায়নের তারিখ চিহ্নিত করা যাবে


  • জিজ্ঞাসা করার জন্য প্রশ্নঃ
  • কর্তৃপক্ষ যে সমস্ত প্রকল্প বাস্তবায়িত হচ্ছে সেগুলো সম্পূর্ণ হওয়ার স্টেটাস, এবং তাদের সাথে সম্পর্কিত লাভ সহ পরিকল্পনাটিকে স্পষ্টতর করে তুলতে পারেন।
  • কর্তৃপক্ষ সক্রিয়ভাবে পানি সংরক্ষণ করার বিষয়টি প্রচার করেন বা উৎসাহ দেন


  • পরিদর্শন – শারীরিকভাবে যে বিষয়গুলোকে দেখতে হবেঃ
  • পরিকল্পনাতে চিহ্নিত প্রকল্পগুলো সম্পূর্ণ হয়ে গেছে বা কাজ চলছে 
  • পরিকল্পনার সাথে সংশ্লিষ্ট যেকোনো যন্ত্রপাতি বা প্রক্রিয়ার ছবি তুলুন

আংশিক হ্যাঁ 

  • “হ্যাঁ” উত্তরের জন্য একই আবশ্যকতা কিন্তু উৎসগুলোর জন্য (অথবা একটি উৎসের জন্য) যেগুলি সামগ্রিক পানির ব্যবহারের ৫০-৭৯%

বাস্তবায়ন পরিকল্পনার একটি প্রতিলিপি আপলোড করুন।

আপলোডের জন্য সুপারিশ: দয়া করে পানি ব্যবহার কম করা সংক্রান্ত পরিকল্পনাটি আপলোড করুন যাতে পানি ব্যবহারের ক্ষেত্রে হ্রাস করার ক্ষেত্রে লক্ষ্যপূরণের জন্য নির্ধারিত পদক্ষেপগুলো প্রতিফলিত হবে।

হ্যাঁ-সূচক উত্তর দিন  যদি আপনার বাস্তবায়ন সংক্রান্ত এমন কোনো পরিকল্পনা থাকে যা দেখায় যে আপনি আপনার হ্রাস-সংক্রান্ত লক্ষ্য অর্জনের জন্য পদক্ষেপ নিচ্ছেন।

আংশিক হ্যাঁ-সূচক উত্তর দিন যদি আপনার কোনো পরিকল্পনা থাকে কিন্তু করণীয় সব কাজ আপনি না শুরু করে থাকেন।

এই প্রশ্নের উদ্দেশ্য কি?

পদ্ধতিগতভাবে পানির ব্যবহার কমানোর জন্য লক্ষ্য-স্থির করা একটি গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ, কিন্তু আপনার কারখানাকে অবশ্যই উন্নতিবিধানের জন্য হ্রাস-সংক্রান্ত পদক্ষেপ নিতে হবে। বাস্তবায়নের জন্য একটি পরিকল্পনা আপনার লক্ষ্যস্থির করা হ্রাস অর্জনের জন্য আপনি যে পদক্ষেপগুলো গ্রহণ করছেন তাদের দেখায়।  কিছু কারখানার নির্দিষ্ট লক্ষ্য ছাড়াই বাস্তবায়ন পরিকল্পনা থাকতে পারে।  উন্নতিবিধানের সুযোগকে চিহ্নিত করতে এবং সমাধান প্রস্তাব করার জন্যও কর্তৃপক্ষের একনিষ্ঠতা, কর্মীদের সচেতনতা, এবং অংশগ্রহণ জরুরি, এবং যদি প্রয়োজন হয়, আসল বা ব্যয়ের জন্য নির্ধারিত ডলার ব্যবহার করে প্রস্তাবিত সমাধান সফলভাবে বাস্তবায়ন করে পরিবর্তন করা প্রয়োজন। সমাধান কার্যকরী করার অভিমুখী বহু সম্ভাব্য পথের মধ্যে প্রায়শই অন্তর্ভুক্ত থাকে তৃতীয় পক্ষীয় পরামর্শ, লিখিত নথিপত্র এবং প্রযুক্তিগত গবেষণা, ডিজাইনের ফার্ম, এবং প্রথম ধাপের পরীক্ষানিরীক্ষা।  শুরু থেকেই একটি সংগঠিত এবং সুসমন্বিত উন্নতি-সংক্রান্ত পদক্ষেপ যাতে নেয়া যায় তা সুনিশ্চিত করার জন্য লক্ষ্য অর্জনের সাথে সম্পর্কিত সমস্ত কর্মকাণ্ড একটি বাস্তবায়ন পরিকল্পনার অংশ হওয়া উচিত।

প্রযুক্তিগত নির্দেশনাঃ

পানি সংরক্ষণ প্রকল্পগুলোর জন্য সংযোগ ব্যবস্থা এবং অনুমোদনের জন্য দায়বদ্ধ একটি ব্যবসায়িক প্রক্রিয়া কারখানার দ্বারা নথিবদ্ধ এবং আনুষ্ঠানিক হওয়া উচিত।

কর্ম-পদক্ষেপের মধ্যে অন্তর্ভুক্ত থাকা উচিতঃ 

  1. পানি বাঁচানোর সুযোগগুলোকে চিহ্নিতকরণ
  2. পানি বাঁচানোর বিকল্পগুলো, বিনিয়োগ এবং বিনিয়োগ ফেরত (রিটার্ন অন ইনভেস্টমেন্ট) মূল্যায়ন করা
  3. বেছে নেয়া সমাধানের জন্য আর্থিক অনুমোদন দেয়া
  4. সমাধান বাস্তবায়ন করা এবং হ্রাসগুলোকে অনুসরণ করা
  5. অগ্রগতি পর্যবেক্ষণ করার জন্য কার্য-পদক্ষেপের নিয়মিত পর্যালোচনা করানো

পানি বাঁচানোর সুযোগগুলো চিহ্নিত করার উপায়গুলোর মধ্যে কয়েকটি হতে পারে স্বতন্ত্র কর্মী, পানি সংক্রান্ত অডিট, এবং পানির ভারসাম্য। সঞ্চয়ের কিছু সরল বিকল্পগুলি রক্ষণাবেক্ষণের সাথে যুক্ত যেমন ছিদ্র সারিয়ে ফেলা। সঞ্চয়ের অন্যান্য বিকল্পগুলো আরো জটিল হতে পারে যার মধ্যে যন্ত্রপাতি/রাসায়নিক প্রক্রিয়াকরণ বা প্রতিস্থাপন বাধ্যতামূলক হতে পারে যেমনঃ

  • প্রক্রিয়া এবং রেসিপিকে উন্নততর করা
  • সর্বোত্তম অনুকূল প্রক্রিয়ার শর্তগুলো এবং দ্রুততার বাধ্যবাধকতা খুঁটিয়ে দেখা
  • প্রথমবারেই-সঠিক হওয়া অর্জন করার মাত্রা বাড়ানো
  • ধুয়ে-ফেলা ধরনের আচরণকে উন্নত করতে সক্ষম রাসায়নিকগুলোর ব্যবহার
  • প্রক্রিয়াগুলোর মিশ্রণঃ দুটি স্তরের জন্য একই বাথ্‌-এ রঞ্জন এবং রাসায়নিক পদার্থের ব্যবহারের সম্ভাবনা
  • অন্যান্য প্রক্রিয়ার জন্য ধোয়াধুয়ির আগে হালকাভাবে ধোয়া অথবা ধোয়ার পানি ব্যবহার করার সম্ভাবনা

মূল্যই সাধারণভাবে সবচেয়ে উদ্বেগের বিষয়, সেই কারণে একটি কারখানার উচিত বিনিয়োগ ফেরতের বিষয়গুলোকে মূল্যায়ণ করা যেহেতু উন্নয়নের জন্য বিনিয়োগের প্রয়োজন কিন্তু পানি ব্যবহারের খরচকে কমাতে সক্ষম হতে পারে এবং শক্তি ও রাসায়নিক সঞ্চয়ও এর অন্তর্ভুক্ত হতে পারে। একবার সমাধান খুঁজে নেয়া গেলে কারখানাটির বাস্তবায়নকে সময়সীমাভুক্ত করা এবং সহায়তা প্রদান করা উচিত। এটি ভাল্‌ভ বদলানোর মতো সহজ অথবা একটি তৃতীয় পক্ষের মাধ্যমে নকশা বানানোর চুক্তি তৈরি করার মতো কঠিন। শেষ পর্যন্ত এই প্রশ্নটি সেই কাঠামোর দিকে তাকিয়ে রয়েছে যেটি হলো যে কারখানাটি কীভাবে মজবুত প্রবর্তনগুলোর জন্য পদক্ষেপ গ্রহণ করে।

আপনার বাস্তবায়ন পরিকল্পনার অন্তর্ভুক্ত হতে পারে যেকোনো পদক্ষেপ যা পানির ব্যবহারকে কমিয়ে দেয়। পানি সঞ্চয় করার পরিমাপের অন্তর্ভুক্ত হলোঃ

  • প্রক্রিয়ার শেষে জমে থাকা বস্তু সংগ্রহ এবং পুনর্ব্যবহার
  • শীতলীকরণের জন্য নেয়া পানি সংগ্রহ এবং পুনর্ব্যবহার
  • জিরো লিক্যুইড ডিসচার্জ (জেডএলডি) পানি পরিশোধন প্রযুক্তি ব্যবহার করে ৮০%-এরও বেশি পানি রিসাইক্‌ল করা এবং পুনর্ব্যবহার করা।
  • প্রক্রিয়াজাত বা ধোয়ার পানি সংগ্রহ এবং পুনর্ব্যবহার (অন্তত ৩০%-এর সুপারিশ রয়েছে)
  • নিম্ন লিকারের রঞ্জক মেশিন ব্যবহার
  • প্রতিটি স্বতন্ত্র প্রক্রিয়ার রেসিপিতে লিকারের অনুপাত দেখানো
  • নিরন্তর ফ্লো ওয়াশের বদলে ব্যাচ হিসেবে ধোয়ার প্রবর্তন
  • ডাই (রঞ্জক পদার্থ) এবং অক্সিলিয়ারির জন্য স্বয়ংক্রিয় বন্টন ব্যবস্থা (রাসায়নিক যার অন্তর্ভুক্ত হলো লবণ)

সর্বোত্তম অভ্যাসগুলোর সুপারিশের মধ্যে আছেঃ

  • যন্ত্রপাতি পরিষ্কার/ধোয়াধুয়ির জন্য রঞ্জক পদার্থের ব্যাচের সময়সীমা তৈরি করা (ডাই মেশিনে অনুরূপ রঙগুলোকে শ্রেণীবদ্ধ করা)
  • প্রবাহে কম পিগ্‌মেন্ট সহ কম সংখ্যক বার ধোয়ার জন্য ডাই ফিক্সেশনের অনুপাত বৃদ্ধি করা
  • পানি কম ব্যবহার করার স্বার্থে উন্নতমানের রাসায়নিক ব্যবহার
  • পানি সঞ্চয়ের জন্য আধুনিক যন্ত্রপাতি ইনস্টল করা।
  • ফ্লো-মিটার প্রক্রিয়া অনুযায়ী পানির ব্যবহার সম্পর্কে খেয়াল রাখে
  • পানির সংরক্ষণ বিষয়ে কর্মী সচেতনতা
  • ছিদ্র (অভ্যাসগত ভাবে নষ্ট হওয়া) বন্ধ করা

আরও তথ্যের জন্য কোথায় যেতে হবেঃ 

এটা কীভাবে যাচাই করা যাবেঃ

হ্যাঁ

  • নথিপত্র আবশ্যকঃ
  • পানি ব্যবহার হ্রাসের তালিকা যার অন্তর্ভুক্ত হলো সুনির্দিষ্ট প্রকল্প, হ্রাসের লক্ষ্য, তারিখ, এবং প্রগতি যা মোট পানি ব্যবহারের ৮০% বা তারও বেশি এবং/অথবা
  • বহিরাগত পক্ষের দ্বারা পানির অডিট অথবা মূল্যায়ণ যার মাধ্যমে পানি হ্রাসের সুযোগ এবং বাস্তবায়নের তারিখ চিহ্নিত করা যাবে
  • জিজ্ঞাসা করার জন্য প্রশ্নঃ
  • কর্তৃপক্ষ যে সমস্ত প্রকল্প বাস্তবায়িত হচ্ছে সেগুলো সম্পূর্ণ হওয়ার স্টেটাস, এবং তাদের সাথে সম্পর্কিত লাভ সহ পরিকল্পনাটিকে স্পষ্টতর করে তুলতে পারেন।
  • কর্তৃপক্ষ সক্রিয়ভাবে পানি সংরক্ষণ করার বিষয়টি প্রচার করেন বা উৎসাহ দেন
  • পরিদর্শন – শারীরিকভাবে যে বিষয়গুলোকে দেখতে হবেঃ
  • পরিকল্পনাতে চিহ্নিত প্রকল্পগুলো সম্পূর্ণ হয়ে গেছে বা কাজ চলছে 
  • পরিকল্পনার সাথে সংশ্লিষ্ট যেকোনো যন্ত্রপাতি বা প্রক্রিয়ার ছবি তুলুন

আংশিক হ্যাঁ 

  • “হ্যাঁ” উত্তরের জন্য একই আবশ্যকতা কিন্তু উৎসগুলোর জন্য (অথবা একটি উৎসের জন্য) যেগুলি সামগ্রিক পানির ব্যবহারের ৫০-৭৯%

উৎস 

  • একটি বেসলাইন বছর বেছে নিন 
  • এই উৎস থেকে আপনার কারখানার পানি প্রত্যাহারের ক্ষেত্রে পরিবর্তন নির্দেশ করুন (পরিমাণ, মাপের ইউনিট এবং শতকরা হারে বদল)
  • এই উন্নতি অর্জন করার ক্ষেত্রে ব্যবহৃত কৌশলগুলোর বিবরণ দিন

আপলোডের জন্য সুপারিশ: ক) বার্ষিক পানি তোলার ক্ষেত্রে পানির অন্তত একটি উৎসের নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড) বা চূড়ান্ত (অ্যাবসল্যুট) হ্রাসের প্রমাণ (যেমন, উপরিভাগের তাজা পানি, ভূগর্ভ্যস্থ পানি ইত্যাদি) যার পিছনে কারখানার গৃহীত পদক্ষেপের অবদান রয়েছে। খ) পানি ট্র্যাক করার রিপোর্ট যা গত ক্যালেণ্ডার বছরে নর্ম্যালাইজড পানি তোলার ক্ষেত্রে হ্রাস দেখাবে 

আপনি পুরো পয়েন্ট পাবেন যদি গত ক্যালেণ্ডার বছরে আপনার মোট পানি প্রত্যাহারের ৮০% বা ততোধিক পূরণকারী পানির উৎসগুলো থেকে পানি তোলা হ্রাস করতে পেরে থাকেন।

আপনি আংশিক পয়েন্ট পাবেন যদি গত ক্যালেণ্ডার বছরে আপনার মোট পানি প্রত্যাহারের ৫০-৭৯% পূরণকারী পানির উৎসগুলো থেকে পানি তোলা আপনি হ্রাস করতে পেরে থাকেন। আপনার পানি ব্যবহারের বৃহত্তর উৎসগুলো যা পরিবেশগত ক্ষতিগুলোকে সর্বাপেক্ষা বাড়িয়ে তোলে, সেগুলোকে হ্রাস করার জন্য এটি আপনার পুরস্কার।

না বেছে নিন যদি গত ক্যালেন্ডার বছরে আপনার কিছুই হ্রাস না হয়ে থাকে অথবা কোনো একটি উৎসের ক্ষেত্রে আপনাকে যখন সেই উৎসের জন্য উত্তর দিতে হবে তখন আপনার হ্রাসের পরিমাণ যদি আপনি বলতে সক্ষম না হন।

যদি আপনি আপনার প্রত্যেকটি উৎসের জন্য বেসলাইন লিখে থাকেন, আপনার হ্রাস যন্ত্রের মধ্যেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে গণনা হবে। যদি আপনি বেসলাইন এন্টার না করে থাকেন, আপনার হ্রাস সম্পর্কে নিজে এন্টার করার বিকল্প নিচে রয়েছে।

এই প্রশ্নের উদ্দেশ্য কি?

স্থায়িত্ববাদীতা হলো নিরন্তর উন্নতিবিধানের একটি যাত্রা। সাফল্য হলো ব্যাপক এক কাজের ফলাফল যাতে অন্তর্ভুক্ত রয়েছে অনুসরণ, লক্ষ্য স্থির করা, এবং লক্ষ্য পূরণের জন্য বাস্তবায়ন পরিকল্পনা অনুযায়ী কাজ নিষ্পন্ন করা। এই প্রশ্নটি কারখানাগুলিকে রিপোর্টিং বছরটিতে পানি সংরক্ষণের ক্ষেত্রে তাদের নির্ণয়যোগ্য পরিমাণের অর্জিত সাফল্য প্রদর্শন করার একটি সুযোগ প্রদান করে। আগের বছর জুড়ে উন্নতিবিধানকে অনুসরণ করে, একটি কারখানা তার সফলতার মাধ্যমে মজবুত হওয়ার দিকে নিজের একনিষ্ঠতাকে প্রমাণ করে।

এটি আপনার কঠিন পরিশ্রমের মাধ্যমে প্রভাব হ্রাসের ক্ষেত্রে অনুসরণ করা, লক্ষ্য স্থির করা এবং একটি কর্মপরিকল্পনা তৈরি করার বিষয়গুলোকে প্রদর্শন করার সুযোগ। আপনি গত ক্যালেন্ডার বছরে কি অর্জন করেছেন তা শেয়ার করার জন্য এই প্রশ্নটি ব্যবহার করুন।

প্রযুক্তিগত নির্দেশনাঃ

হ্রাস হতে পারে অ্যাবসল্যুট (চূড়ান্ত) অথবা নর্ম্যালাইজড (নিয়মমাফিক), তবে প্রস্তাবনা দেয়া হয় যে আপনি নিয়মমাফিক হ্রাসই দেখাবেন যেমন “ভূগর্ভ্যস্থ পানির ব্যবহার রিপোর্টিঙের বছরে ইউনিট প্রতি 0.17 m3 কমানো হয়েছিল।” এর কারণ ব্যবসায়িক পরিবর্তন যেমন উৎপাদনে হ্রাস ইত্যাদির তুলনায় নিয়মমাফিক মেট্রিক্স প্রকৃত উন্নতি প্রদর্শন করে।

এই প্রশ্নে হ্যাঁ উত্তর দিতে পারার জন্য বছরের পর বছর পানির ব্যবহার কম হওয়ার বিষয়টি এফইএম-এ প্রদর্শন করা আবশ্যক। আপনার পানি ব্যবহারের উন্নতি মূল্যায়ন করার সময়, নিম্নলিখিত বিষয়গুলি নিশ্চিত করবেনঃ

  • পানির উৎসের উপাত্ত এবং একত্রিত মোট সংখ্যাটি পর্যালোচনা করবেন যাতে উপাত্ত এবং যেকোনো স্বয়ংক্রিয় গণনা নির্ভুল রয়েছে।
  • উন্নতির লক্ষ্যে গৃহীত পদক্ষেপগুলি পুনর্বিবেচনা করুন এবং ঐতিহাসিক পানি ব্যবহারের উপাত্ত এবং উন্নতির পরিমাণ নির্ধারণের জন্য বেসলাইনগুলিকে উপাত্তের সাথে তুলনা করার মাধ্যমে এগুলোর কারণে পরিমাপযোগ্য উন্নতি ঘটেছে কিনা তা নির্ধারণ করুন। টীকা: ঐতিহাসিক উপাত্ত নির্ভুল কীনা তাও যাচাই করতে হবে।

উদাহরণ স্বরূপঃ একটি স্টীম কন্ডেন্‌সেট রিকভারি ব্যবস্থা বসানোর ফলে নিয়মমাফিক পানি খরচের ক্ষেত্রে বছরের পর বছর উৎপাদিত কাপড়ের মিটার পিছু ২% হ্রাস সম্ভব হয়েছিল। কন্ডেন্‌সেট রিকভারি ব্যবস্থায় বসানো সাব-মিটারের মাধ্যমে এবং সাইটের সামগ্রিক পৌর-পানি খরচের উপাত্ত দ্বারা এটি মাপা হয়েছিল।

হিগ্‌ এফইএম-এ উন্নতিবিধানের রিপোর্টিংঃ

করবেনঃ

  • উপরে উল্লিখিত সমস্ত বিষয়গুলি আওতাধীন রয়েছে এবং তথ্য নির্ভুল রয়েছে তা নিশ্চিত করার জন্য হ্রাস-সংক্রান্ত উপাত্ত পুনর্বিবেচনা করবেন।
  • উন্নতিবিধানের পরিমাণ হয় একটি চূড়ান্ত (অ্যাবসল্যুট) অথবা নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড) ভ্যালু হিসেবে প্রবেশ করান। এটি বছরের পর বছর ধরে এই উৎসের থেকে পানি ব্যবহারের ক্ষেত্রে পরিবর্তন। (যেমন, পূর্ববর্তী বছরের খরচ – রিপোর্টিং বছরের খরচ = পানি ব্যবহারে পরিবর্তন) নিশ্চিতভাবে প্রবেশ করান  হ্রাস দেখানোর জন্য একটি নেতিবাচক সংখ্যা (যেমন -0.05 নিয়মমাফিক হ্রাসের ক্ষেত্রে 0.05 m3/টুকরো) এবং  বৃদ্ধি দেখানোর জন্য একটি ইতিবাচক সংখ্যা (যেমন 0.03 রিসাইক্‌ল করা পানি ব্যবহারের ক্ষেত্রে নিয়মমাফিক বৃদ্ধির জন্য 0.03 m3/টুকরো)
  • হ্রাস দেখানোর জন্য যথাযথ ইউনিট বেছে নিন। (যদি উপযুক্ত ইউনিট পাওয়া না যায়, “এই উন্নতি অর্জনের ক্ষেত্রে ব্যবহৃত কৌশলগুলির বিবরণ দিনঃ” লেখা জায়গাতে ইউনিটগুলিকে তালিকাভুক্ত করুন)
  • পূর্ববর্তী বছরে উৎসটি থেকে পানি ব্যবহারের (%) পরিবর্তন প্রবেশ করান। হ্রাসজনক লক্ষ্যের জন্য একটি নেতিবাচক শতকরা হার (যেমন ৫% হ্রাস করার জন্য -৫), এবং একটি  বৃদ্ধিমূলক লক্ষ্যের জন্য ইতিবাচক শতকরা হার (যেমন ব্যবহারের ক্ষেত্রে ৫% বৃদ্ধির জন্য ৫) প্রবেশ করানোর বিষয়টি নিশ্চিত করবেন।
  • “এই উন্নতি অর্জনের ক্ষেত্রে ব্যবহৃত কৌশলগুলির বিবরণ দিনঃ” লেখা জায়গাতে পর্যাপ্ত খুঁটিনাটি জানাবেন (যেমন, নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজড) পৌর ব্যয় একটি কন্ডেন্সেট রিকভারি ব্যবস্থা বসানোর মাধ্যমে হ্রাস করা হয়েছিল)।

 

করবেন নাঃ

  • নির্ভুল নয় এমন উন্নতি সম্পর্কে রিপোর্ট করা (যেমন, উপাত্তের সূত্র অজানা বা যাচাই করা হয়নি)
  • এমন উন্নতি সম্পর্কে রিপোর্ট করা যেগুলো এফইএম রিপোর্টিং বছরে অর্জিত হয়নি (যেমন ঐতিহাসিক হ্রাস যা ১ বছরেরও আগে অর্জিত হয়েছিল সেগুলো রিপোর্ট করা উচিত নয়)
  • এমন উন্নতি সম্পর্কে রিপোর্ট করা যা চূড়ান্ত (অ্যাবসল্যুট) এবং উৎপাদনে হ্রাস অথবা কারখানার হ্রাসপ্রাপ্ত ক্রিয়াকলাপের সাথে সম্পর্কিত। এই কারণেই উপাত্তকে নিয়মমাফিক (নর্ম্যালাইজেশন) করা জরুরি। 
  • অপর্যাপ্ত উপাত্তের উপর নির্ভরশীল উন্নতি সম্পর্কে রিপোর্ট করা। (যমন, সামগ্রিক হ্রাস অর্জন করা গেছিল কিন্তু এটি এই হ্রাসের মাত্রা অর্জন করার জন্য পরিমাপযোগ্য অথবা বর্ণিত পদক্ষেপের সাথে সম্পর্কিত ছিল না)। এটি বিশেষ করে জরুরি যখন উন্নতির পরিমাণ প্রান্তিক (যেমন, ১-২%-এর চেয়ে কম) এবং সম্ভবত পরিমাপ/ অনুসরণের ত্রুটি এবং/অথবা প্রয়োগমূলক পরিবর্তনশীলতার কারণে ঘটেছে।

 

টীকাঃ প্রকৃত উন্নতির %-কে এটি স্কোর দিচ্ছে না কারণ একটি কারখানা তার শেষ ৫-১০% পানির কার্যকারিতাকে নিয়ে কাজ করতে পারে যা পূরণ করা খুব কঠিন। আমরা মিছিমিছি সদ্য শুরু করাদের পুরস্কৃত করতে এবং নেতৃস্থানীয়দের কম পয়েন্ট দিতে চাই না।

এটা কীভাবে যাচাই করা যাবেঃ

কোনো কারখানার উন্নতি যাচাই করার সময়, যাচাইকারীদের অবশ্যই পর্যালোচনা করতে হবেঃ

  • রিপোর্ট করা হ্রাসের পরিমাণ নির্ভুল এবং পানির ব্যবহার কমানোর জন্য গৃহীত পরিমাপযোগ্য পদক্ষেপগুলির কারণেই ঘটেছে তা যাচাই করার জন্য সমস্ত পরিপোষক প্রমাণ (যেমন পানি ব্যবহারের উপাত্ত এবং বেসলাইন, ইত্যাদি)। 
  • হ্রাস করার জন্য বাস্তবায়িত পরিবর্তনগুলি অথবা গৃহীত পদক্ষেপগুলি।

 

যদি কোনো অসামঞ্জস্য অথবা ত্রুটি লক্ষ্য করা যায়, রিপোর্ট করা তথ্য যেখানে সম্ভব অবশ্যই সংশোধন করতে হবে এবং বিশদ মন্তব্যসমূহ উপাত্ত যাচাইয়ের ক্ষেত্রে অন্তর্ভুক্ত করতে হবে।

পুরো পয়েন্ট 

  • নথিপত্র আবশ্যকঃ
  • পানি অনুসরণকারী রিপোর্ট এবং গ্রহণের রেকর্ড যা পানির সেই উৎসগুলোর ক্ষেত্রে হ্রাস প্রদর্শন করে যেগুলো আপনার মোট পানি ব্যবহারের ৮০%-এরও বেশি পরিমাণকে পূরণ করে।
  • নতুন যন্ত্রপাতি কেনার অথবা কার্যকারীতার উন্নতিবিধানের প্রমাণ যা প্রদর্শন করে যে কেবলমাত্র উৎপাদন হ্রাস করে, অথবা কর্মীসংখ্যা কমানোর মাধ্যমে, বা প্রক্রিয়া পরিবর্তনের মধ্যে দিয়ে হ্রাস করা হয়নি।


  • জিজ্ঞাসা করার জন্য প্রশ্নঃ
  • পানির ব্যবহার ব্যবস্থাপনার জন্য দায়বদ্ধ দলের সাথে আলোচনা । দলটিকে স্পষ্টভাবে ব্যাখ্যা এবং প্রদর্শন করতে হবে যে কীভাবে হ্রাসের মাত্রা অর্জন করা হয়েছিল (যেমন কী পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছিল, এবং এই পরিবর্তনকে কীভাবে পরিমাপ ও গণনা করা হয়েছিল)।
  • কর্তৃপক্ষ সচেষ্টভাবে নিরন্তর পানি ব্যবহার-হ্রাসকারী লক্ষ্যগুলোকে নিয়মিত পর্যালোচনার মাধ্যমে উন্নতিবিধান করছেন
  • কর্তৃপক্ষ ব্যাখ্যা করতে পারবেন যে কীভাবে উন্নতির জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপগুলো নেয়া হয়েছিল।


  • পরিদর্শন – শারীরিকভাবে যে বিষয়গুলোকে দেখতে হবেঃ
  • প্রকল্প পরিকল্পনার উপাদানগুলোর অগ্রগতি (যেমন, পানি তোলা কমানোর জন্য সরঞ্জাম/প্রক্রিয়ার পর্যবেক্ষণ)
  • পানির কার্যকারীতা সংক্রান্ত প্রকল্পগুলো থেকে যে ছাড় (রিবেট) পেয়েছেন (যদি প্রযোজ্য হয়)
  • পানির কার্যকারিতা সংক্রান্ত লক্ষ্যপূরণের জন্য পুরস্কার বা সার্টিফিকেট

আংশিক পয়েন্টগুলো 

  • “হ্যাঁ” উত্তরের জন্য একই আবশ্যকতা কিন্তু উৎসগুলোর জন্য (অথবা একটি উৎসের জন্য) যেগুলি সম্পূর্ণ পানির ব্যবহারের ৫০-৭৯% পূরণ করে

পানির ব্যবহার – স্তর ৩

Questions

পানির ভারসাম্য বিশ্লেষণ করার পদ্ধতি আপলোড করুন।

  • পানির ভারসাম্যের বিশ্লেষণ কীভাবে করা হয়েছিল

হ্যাঁ উত্তর দিন যদি আপনার কারখানা পানি গ্রহণ বনাম কারখানায় তার ব্যবহারবিধি এবং নিষ্ক্রমণের অনুসরণযোগ্যতাকে সম্পূর্ণরূপে বোঝার জন্য পানির ভারসাম্য রক্ষার বিষয়টি বাস্তবায়ন করে থাকে। নিম্নলিখিত তথ্য পানির ভারসাম্য সংক্রান্ত সম্পূর্ণতার অন্তর্ভুক্ত হওয়া উচিত।

আংশিক হ্যাঁ বলুন যদি আপনি পানির ভারসাম্য আংশিকভাবে সম্পূর্ণ করে থাকেন কিন্তু সমস্ত বাধ্যবাধকতা পূরণ করার ক্ষেত্রে কর্মপরিকল্পনা মাত্র রয়েছে।

অন্তর্ভুক্ত হলোঃ

  • কারখানা ঢোকা পানিঃ পরিমাণ এবং পানির উৎস
  • উৎপাদন প্রক্রিয়া চলাকালীন ব্যবহৃত পানির পরিমাণ
  • কারখানায় রিসাইক্‌ল হওয়া / পুনর্ব্যবহৃত হওয়া পানির পরিমাণ
  • উৎপাদিত বর্জ্যপানির গুণগত মান
  • কারখানায় উৎপাদিত বর্জ্যপানি
  • নিজেদের পরিশোধন কার্যের পরে নিষ্ক্রান্ত পানির আয়তন
  • যে হারে পানির ভারসাম্যকে হালনাগাদ করা হয়

এই প্রশ্নের উদ্দেশ্য কি?

কারখানা জুড়ে পানির ভারসাম্য তৈরি করলে হিসাব না থাকা পানিকে চিহ্নিত করতে এবং কার্যকারিতার উন্নতিবিধানের সুযোগ রয়েছে এমন জায়গাগুলোতে অন্তর্দৃষ্টি প্রদান করতে কারখানাগুলো সহায়তা পায়। পানির ভারসাম্য, ঐতিহাসিকভাবে পানির ব্যবহার এবং পানির মূল্য সহ, একটি কারখানাকে সামগ্রিকভাবে কারখানাতে পানির ব্যবহার এবং আর্থিক সঞ্চয়ের সুযোগ সম্পর্কে বুঝতে সাহায্য করে।

প্রযুক্তিগত নির্দেশনাঃ

সময়ের দৃশ্যমানতার প্রেক্ষিতে কর্মকুশলতাকে দেখায় যে পদ্ধতি সেটিই হলো পানির ভারসাম্য। পানির ভারসাম্য সংক্রান্ত ব্যবস্থা একটি কারখানাকে পানির ব্যবহার এবং ছিদ্র ও বাষ্পীভবনের মাধ্যমে সম্ভাব্য ক্ষতি চিহ্নিত করতে সহায়তা করে যেহেতু এটি যেকোনো একটি অঞ্চলে / উপাদানে/ প্রক্রিয়াতে বর্জ্যপানির বিষয়টি খুঁটিয়ে দেখে। মূল্য সহ ঐতিহাসিক পানির ব্যবহার ট্রেন্ড তৈরি করতে পারে যা একটি কারখানাকে অনেকটা সময় ধরে কারখানা স্তর থেকে ব্যক্তিভিত্তিক প্রক্রিয়ার ধাপ অবধি কর্মকুশলতাকে দৃষ্টিগোচর করতে সহায়তা করে। পানির ভারসাম্য তৈরি করার ক্ষেত্রে সীমানা সৃষ্টিকারী বিষয়গুলো হলো মিটার/হিসেব এবং উপাত্তের লগ, যেগুলোকে রক্ষণাবেক্ষণ করতে হয়। এটিকে স্বয়ংক্রিয়ভাবে এবং চাহিদার ভিত্তিতে ঘটানোর জন্য বৈদ্যুতিন উপাত্ত ব্যবস্থা বাস্তবায়িত করা যায়, যেটি সময় এবং প্রচেষ্টাকে অনেকটাই কমিয়ে আনবে অন্যথায় যা করার জন্য পানি অডিটের প্রয়োজন।

প্রাথমিক পানির ভারসাম্য কারখানার গণ্ডির পাঁচিলকে ধর্তব্য হিসেবে বিবেচনা করে এবং বাইরের উৎসগুলো থেকে কারখানার ভিতরে আসা সমস্ত পানিকে চিহ্নিত করে (যার অন্তর্ভুক্ত হলো কারখানার ভেতরকার কুয়ো), এবং কারখানা থেকে নির্গত সমস্ত বর্জ্যপানি এবং নর্দমার প্রবাহ। একটি আদর্শ পরিবেশে কোনো ক্ষতি হয় না, সেই কারণে ইনফ্লুয়েন্ট (অন্তঃপ্রবাহ) – এফ্লুয়েন্ট (বহির্প্রবাহ) = ০।

তবে, বাস্তব পরিস্থিতিতে, ইনফ্লুয়েন্ট এবং এফ্লুয়েন্টের মধ্যে পার্থক্য শূন্য হতে পারে না। পার্থক্য সম্ভবত হয়ে যায় ছিদ্র, বাষ্পীভবন (ইচ্ছাকৃত বা অনিচ্ছাকৃত), পরিমাপের ভুল (১-১০%), ইত্যাদিতে। সমগ্র পানির ব্যবহারের ১৫%-এর কম পার্থক্য হলে তা স্বাভাবিক। যাইহোক, সমগ্র পানির ব্যবহারের ২৫%-এর বেশি সাধারণভাবে একটি বৃহত্তর সমস্যার পরিচায়ক এবং পানি বেরিয়ে যাওয়ার উৎসকে বাড়তি তদন্তের মাধ্যমে চিহ্নিত করা প্রয়োজন। উদাহরণ হিসেবে, এটি প্রায়শই ছিদ্র এবং খারাপ কর্মকুশলতা-সম্পন্ন যন্ত্রপাতিকে খুঁজে বার করতে পারে।

আরো উন্নত ধরনের পানির ভারসাম্য পাঁচিল খোঁজার বিষয়টিকে কারখানার এলাকাগত সীমানা থেকে বাড়ির সীমানা, নির্মাণ প্রক্রিয়ার সীমানা, অথবা এমনকি একটি উপকরণ/যন্ত্রপাতি-নির্দিষ্ট সীমানার দিকেও দৃষ্টি নিবদ্ধ করে। টুলের ভিতরে কি ঢুকছে এবং তা থেকে কি বার হচ্ছে? এই উন্নততর ভারসাম্যটি কেবলমাত্র মিটারিং এবং ব্যবহারের জন্য উপলব্ধ হিসেব-পয়েন্ট দ্বারা সীমাবদ্ধ কিন্তু একটি কারখানার ভেতরে পানি ব্যবহারের বৃহত্তর পরিমাপ করে থাকে, যা পরিবর্তে সেইসব ব্যবহারগুলোর ক্ষেত্রে বৃহত্তর নিয়ন্ত্রণ প্রদান করে।

  • আপনার সমগ্র কারখানাতে পানি কিভাবে ব্যবহার হয় তা চিহ্নিত এবং বিশ্লেষণ করুন। কারখানায় পানির আগমন বনাম ব্যবহার (যেমন, কোন প্রক্রিয়াগুলো) এবং বহির্গমন (যেমন, ইটিপি)-এর অনুসরণযোগ্যতাকে মূল্যায়ণ করার/বোঝার জন্য কারখানাতে বিশ্লেষণ অবশ্যই হওয়া উচিত। একটি ভালো পদ্ধতি হল পানির ভারসাম্য তৈরি করা। চাহিদার ভিত্তিতে পানির ভারসাম্য প্রাথমিক বা উন্নততর হতে পারে।
  • একটি কারখানাতে পানির ভারসাম্য তৈরি কারখানাটিকে হিসেব-বহির্ভূত পানিকে চিহ্নিত করতে এবং কার্যকারিতা উন্নয়নের সুযোগবিশিষ্ট ক্ষেত্রগুলোতে অন্তর্দৃষ্টি প্রদানের মাধ্যমে সহায়তা করে। পানির ভারসাম্য, ঐতিহাসিকভাবে পানির ব্যবহার এবং পানির মূল্য সহ, একটি কারখানাকে সামগ্রিকভাবে কারখানাতে পানির ব্যবহার এবং সঞ্চয়ের সুযোগ সম্পর্কে বুঝতে সাহায্য করে।
  • প্রাথমিকভাবে পানির ভারসাম্য হলো একটি সমীকরণ যা কারখানার ভিতরে আসা এবং বাইরে বেরনো পানির প্রবাহের বিবরণ দেয়। আদর্শ পরিবেশে মিটার অনুযায়ী ইনফ্লুয়েন্ট এফ্ল্যুয়েন্টের মোট পরিমাণের সমান হবে (ইনফ্ল্যুয়েন্ট = এফ্ল্যুয়েন্ট)। যখন এগুলো সমান নয়, তখন বুঝতে হবে যে পানির ক্ষতি হচ্ছে বা ব্যবহার হচ্ছেঃ ইনফ্ল্যুয়েন্ট – এফ্ল্যুয়েন্ট – পানির ক্ষতি। কিছু ক্ষতি, যেমন বাষ্পীভবন, সাধারণ নির্মাণমূলক পরিচালনার অংশ।

এখানে প্রাথমিক পানি-ভারসাম্যের একটি উদাহরণ রয়েছে যা আপনার কারখানায় পানির ইনফ্লো বনাম আউটফ্লোকে প্রদর্শন করেঃ

সূত্রঃ http://www.sciencedirect.com/science/article/pii/S2212371716300221

  • ১৫%-এর বেশি পার্থক্য মিটার এবং হিসাবের ত্রুটির ছাড়িয়ে আরো বেশি অমিলের পরিচায়ক এবং ছিদ্র বা অন্যান্য সম্ভাব্য সমস্যার অস্তিত্বের দিকে নির্দেশ করে। (সাধারণভাবে, গণনার হিসাবে ১৫% পানির ক্ষতি আসলেই একটি ভালো ভারসাম্য, ১৫%-এর বেশি হলে তা খারাপ ভারসাম্য এবং নির্ভুল হওয়া নিশ্চিত করার জন্য আবার হিসেব করার দরকার হতে পারে। পানির ক্ষতির ভারসাম্য ০ বা নেতিবাচক হলে তা সাধারণত ভুল।)
  • আরো উন্নততর পানির ভারসাম্য যেখানে প্রত্যেকটি এলাকা, বাড়ি, প্রক্রিয়া, অথবা এমনকি যন্ত্রেও ইনফ্ল্যুয়েন্ট এবং এফ্ল্যুয়েন্ট মিটারে গণনা করা হয়েছে, তা আরো বিশদ পানি-ভারসাম্য নির্বাহ হওয়াতে সহায়তা করে। এটি নির্দিষ্ট এলাকা বা বিল্ডিঙে অত্যধিক পানির ব্যবহার দেখাতে পারে। আরো লক্ষ্য-সমন্বিত কার্যকারীতার উন্নতিবিধানের জন্য।
  • যত বেশিবার পানির ভারসাম্যকে পর্যালোচনা করা হবে, কারখানায় পানির ব্যবহার এবং বৈচিত্র্য সম্পর্কে বোঝাপড়া তত বেশি হবে। একটি ব্যবসাকে তার প্রচেষ্টার স্তর এবং সম্ভাব্য প্রাপ্ত মূল্যের মধ্যে ভারসাম্য বজায় রাখতে হবে। মাসিক পানির ভারসাম্যের সুপারিশ করা হয় যেহেতু এটি মরসুমী প্রবণতা এবং পানি ব্যবহারের পরিবর্তনশীলতার ক্ষেত্রে বোঝাপড়া করতে সাহায্য করে এবং সাধারণত অধিকাংশ পানি ব্যবহার সংক্রান্ত বিলের হারের সাথে একত্রে আসে।

শব্দকোষঃ

  • পানির ভারসাম্যঃ প্রাথমিকভাবে পানির ভারসাম্য হলো একটি সমীকরণ যা কারখানার ভিতরে আসা এবং বাইরে বেরনো পানির প্রবাহের বিবরণ দেয়। মিটারে হিসাব করা সমস্ত ইনফ্ল্যুয়েন্ট সমস্ত এফ্ল্যুয়েন্ট এবং পানির ক্ষতির সাথে সমান হবে।

নমুনার জন্য ওয়েবসাইট দেখুন – http://waterplanner.gemi.org/calc-waterbalance.asp

আরও তথ্যের জন্য কোথায় যেতে হবেঃ 

এটা কীভাবে যাচাই করা যাবেঃ

হ্যাঁ

  • নথিপত্র আবশ্যকঃ
  • কারখানাটি সম্পূর্ণরূপে  পানির ভারসাম্য বাস্তবায়ন করেছে অথবা কারখানায় পানি ঢোকা বনাম ব্যবহারবিধি এবং নিষ্ক্রমণের অনুসরণযোগ্যতাকে সম্পূর্ণভাবে বুঝতে পারার জন্য বিশ্লেষণ করার অন্য কোনো পদ্ধতি স্বচ্ছভাবে প্রদর্শন করতে সক্ষম
  • এই রিপোর্টে নিম্নলিখিত তথ্যগুলো অন্তর্ভুক্ত হওয়া উচিতঃ
    • কারখানা ঢোকা পানিঃ পরিমাণ এবং পানির উৎস
    • উৎপাদন প্রক্রিয়া চলাকালীন ব্যবহৃতপানির পরিমাণ
    • কারখানায় রিসাইক্‌ল হওয়া / পুনর্ব্যবহৃত হওয়াপানির  পরিমাণ
    • উৎপাদিতবর্জ্যপানির  গুণগত মান
    • নিজেদের পরিশোধন কার্যের পরে নিষ্ক্রান্ত পানির আয়তন
    • যে হারে পানির ভারসাম্যকে হালনাগাদ করা হয়


  • জিজ্ঞাসা করার জন্য প্রশ্নঃ
  • পানির ভারসাম্য কত ঘন ঘন পর্যালোচনা করা হয়?
  • পানির ভারসাম্য থেকে আপনি কী শিখেছেন?
  • কোথাও ক্ষতি হয়েছিল? কত বড়? সেগুলোকে কীভাবে ব্যাখ্যা করা হয়েছিল?


  • পরিদর্শন – শারীরিকভাবে যে বিষয়গুলোকে দেখতে হবেঃ
  • পানির পাইপলাইনের ড্রয়িং/ ডায়াগ্রাম / ফ্লোচার্ট  পর্যালোচনা করুন , কারখানাটি তাদের পানির ব্যবহারবিধি (ইনপুট থেকে আউটপুট অবধি) সম্পর্কে অবহিত কিনা দেখুন
  • পানির ব্যবহারের জন্য সাব মিটারিং  এবং যথাযথ রেকর্ড রাখা

 

 

top
X